চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

স্বাধীনতার ৫০ বছর: বাঙালির মুক্তির সনদ ‘৬-দফা’

বাঙালির স্বাধিকার আন্দোলন ও জাতিরাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার সূচনা হয় বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে। দ্বিজাতিতত্ত্বের ভিত্তিতে দেশ বিভাগের পর বাঙালি উপলব্ধি করে এ দেশ আমার না, এই স্বাধীনতা আমার না। ধর্মের ভিত্তিতে কোনো সমাজ বা জাতিরাষ্ট্র…

জয় হোক বাংলার সংগ্রামী মানুষের, জয় হোক শেখ হাসিনার

আজ ১৭ মে । ১৯৮১ সালের এই দিনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা স্বদেশ প্রত্যাবর্তন করেন। এই দিনটিকে দেশরত্ন শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস হিসেবে পালন করা হয়। ১৯৭১ সালের রক্তক্ষয়ী মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে…

‘লোভীমানবসৃষ্ট দানবের দ্বারা শ্রমিকদের জীবন যেন বিপন্ন না হয়’

‘‘প্রিয়, ফুল খেলবার দিন নয় অদ্য / ধ্বংসের মুখোমুখি আমরা, / চোখে আর স্বপ্নের নেই নীল মদ্য /কাঠফাটা রোদ সেঁকে চামড়া। /চিমনির মুখে শোনো সাইরেন-শঙ্খ, / গান গায় হাতুড়ি ও কাস্তে, /তিল তিল মরণেও জীবন অসংখ্য /জীবনকে চায় ভালবাসতে।’’ বর্তমান…

কমরেড তাজুল: এক অনন্য শ্রমিক নেতার মহান আত্মত্যাগ

সময়টা ১৯৮৪ সাল। বছরটা লিপ ইয়ার ছিল। সঙ্গত কারণেই সে বছরের ফেব্রুয়ারি মাস ২৯ দিনে ছিল। ওইদিনেই স্বৈরশাসকের গুণ্ডাবাহিনীর ছুরিকাঘাতে মারাত্মকভাবে আহত হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্র, বাংলাদেশের শ্রমিক আন্দোলনের অগ্রদূত কমরেড তাজুল ইসলাম।…

বিভীষিকাময় দিনটি হোক চেতনার বাতিঘর

২৮ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশের ছাত্র আন্দোলনের ইতিহাসে একটি বিভীষিকাময় দিন। ১৯৮৪ সালের সেই দিন ছিল এ দেশের ছাত্রসমাজের জন্য এক বেদনাময় অধ্যায়। তখন দেশে সামরিক শাসন। সেদিন বিকালে ছিল ছাত্রসংগ্রাম পরিষদের মিছিলের কর্মসূচি। শ্রমিক-কর্মচারী ঐক্য…

কাজী আরেফ: যে আদর্শের মৃত্যু নেই

জাতিরাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে ইতিহাসকে অনেক চড়াই উতরাই পার হতে হয়েছে। সেগুলোর মধ্যে শ্রেষ্ঠ সময়টিতে অন্যতম ভূমিকা পালন করেছিলেন কাজী আরেফ আহমেদ। ষাটের দশকে তার সাংগঠনিক দক্ষতা অসাধারণ মাত্রা পেয়েছিল। আজন্ম এ রাজনীতিক…

স্বৈরাচার প্রতিরোধ দিবস: সামরিক শাসকের বিরুদ্ধে প্রতিরোধের ইতিহাস

ঐতিহাসিক ১৪ ফেব্রুয়ারি আজ, ‘স্বৈরাচার প্রতিরোধ দিবস’। কালের পরিক্রমায় আজ পহেলা ফাগুনও। ১৯৮৩ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি এদেশের ছাত্র সমাজ জাতির কাঁধে চেপে বসা সামরিক শাসকের বিরুদ্ধে প্রতিরোধের এক ইতিহাস সৃষ্টি করেছিল, বুকের তাজা রক্ত ঢেলে দিয়ে।…

গণঅভ্যুত্থান দেশকে নিয়ে যায় স্বাধীনতার পথে

মহান গণঅভ্যুত্থান দিবস আজ। ১৯৬৯ সালের এই দিনে ঐতিহাসিক ১১ দফার ভিত্তিতে রচিত হয় মহান গণঅভ্যুত্থান। আত্মাহুতি দেন মতিউর ও রুস্তম। এর আগে ২০ জানুয়ারি ছাত্রদের মিছিলে গুলি হলে শহীদ হয়েছিলেন ছাত্রনেতা আসাদুজ্জামান। এ হত্যার প্রতিবাদেই ২৪…

মরেও তুমি আজ বিপ্লবী শাজাহান সিরাজ

সে এক ঘোরকৃষ্ণপক্ষ। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যার মধ্য দিয়ে বাংলার মানুষের বুকে চেপে বসে সমরিক শাসনের জগদ্দল পাথর। ১৯৭৫ থেকে ১৯৮১ সন পর্যন্ত চলতে থাকে হত্যা ক্যু, ষড়যন্ত্রের রাজনীতি। এরই…

ডা. মিলনের বিনাশ নেই

স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের অন্যতম নেতা ডা. শামসুল আলম খান মিলনের ৩০তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। ডা. মিলনের আত্মদানের মধ্য দিয়ে সেদিনের স্বৈরাচার এরশাদ বিরোধী আন্দোলনে নতুন গতি সঞ্চারিত হয়। ডা. মিলনের শহীদী আত্মদানের মাধ্যমে ১৯-এর ছাত্র…