চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

জামায়াতের ১৩ নারী সদস্যসহ এক মাদ্রাসা অধ্যক্ষ আটক

পাবনায় গোপন বৈঠক করার সময় জামায়াতের ১৩ নারী সদস্যসহ এক মাদ্রাসা অধ্যক্ষকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার রাত ৯টার দিকে শহরতলীর মনসুরাবাদ আবাসিক এলাকা থেকে পাবনা থানা পুলিশ তাদের আটক করে। তারা এসময় গোপন বৈঠক করছিল বলে পুলিশ জানায়। এসময় তাদের কাছ থেকে বিপুল সংখ্যক জিহাদি বইপত্র উদ্ধার করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

পাবনা থানার ওসি নাসিম আহম্মেদ জানান, পাবনা শহরতলীর মনসুরাবাদ আবাসিক এলাকার ৫ নং সড়কের ১১৯ নং বাড়িটির মালিক সাঁথিয়া উপজেলার ধুলাউড়ি কামিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা আনোয়ার হোসেন। দ্বিতল এই বাড়ির নিচ তলায় জামায়াতের নারী সদস্যদের আস্তানা ছিল। এখান থেকে নারী সদস্যরা মেয়েদেরকে সংগঠিত এবং নাশকতার ছক পরিচালনা করতেন।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ রাত ৯টার দিকে ঘিরে ফেলে এবং সেখান থেকে বৈঠক করা অবস্থায় জামায়াতের ১৩ নারী সদস্য এবং বাড়ির মালিক অধ্যক্ষ আনোয়ার হোসেনকে আটক করে। ওই আস্তানা থেকে বিপুল সংখ্যক জিহাদি বই উদ্ধার করা হয়েছে। আটকরা জেলার বিভিন্ন কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী।

বিজ্ঞাপন

পাবনা সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইবনে মিজান তাদেরকে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। পরে তদন্ত করে বিস্তারিত তথ্য উদঘাটন করা হবে।

এদিকে পাবনার বেড়া উপজেলা থেকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে অনছারুল্লাহ বাংলা টিমের ৫ সদস্যকে আটক করেছে র‌্যাব-১৪।

রোববার বিকেলে ময়মনসিং থেকে আসা র‌্যাবের একটি বিশেষ দল বেড়া উপজেলার একটি স্থানে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।

আটকরা আনছারুল্লাহ বাংলা টিমের ৫ জন সক্রিয় সদস্য বলে পুলিশ জানায়। এদের মধ্যে চার জনের বাড়ি পাবনা সাঁথিয়া উপজেলায় ও একজনের বাড়ি বেড়া উপজেলায়।

Bellow Post-Green View