চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Group

এইচপি’র প্রতিভা খুঁজতে আলাদা নির্বাচক

Nagod
Bkash July

মিরপুরের একাডেমি মাঠ সরব হয়ে উঠেছে তরুণ ক্রিকেটারদের পদচারণায়। কারণ বুধবার থেকেই শুরু হয়েছে বিসিবির হাই পাফরম্যান্স (এইচপি) ইউনিটের কার্যক্রম। সকালে ফিটনেস টেস্টের পর শুরু হয় স্কিল ট্রেনিং।

তাদেরকে দেখতে নেটে চোখ রেখেছিলেন নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন। জাতীয় দলকে দেখার পাশাপাশি আকবর-ইমন-রাকিবুলদের ওপরও চোখ রাখতে হচ্ছে তাকে। তবে জাতীয় দলের কোনো সূচি থাকলে  হাবিবুলকে চলে যেতে হবে তার আসল দায়িত্বে। তখন প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীনও ব্যস্ত হয়ে পড়বেন মুশফিক-তামিমদের নিয়ে।

সেই সময়টায় যেন তরুণ খেলোয়াড়দের একজন নির্বাচকের মাধ্যমে পর্যবেক্ষণের মধ্যে রাখা যায়; সেটাও ভাবছেন এইচপি ইউনিটের প্রধান নাইমুর রহমান দুর্জয়। এইচপির জন্য আলাদা নির্বাচকের প্রয়োজনীয়তা উপলব্ধির কথা সরাসরিই জানালেন তিনি।

‘‘সবসময় তো চেষ্টা থাকে (খেলোয়াড়দের মনিটরিং), নির্বাচকরা অনেক সময় হয়তো একটু চাপে থাকেন, জাতীয় দলের খেলা থাকলে। এইচপি দলের আলাদা নির্বাচক নেই। এটার প্রয়োজনীয়তা মাঝে মাঝে অনুভব করি আমি এবং তা নিয়ে আলাপ-আলোচনায় হয়। হয়তো আমরা সামনের দিকে সেটাও (আলাদা নির্বাচক) চিন্তা করবো। যদিও এইচপির আলাদা নির্বাচক থাকলে জাতীয় দলের নির্বাচকদের সাথে একসঙ্গে কাজ করতে হবে। হয়তো জাতীয় দলের ভেতর থেকেই কাউকে দায়িত্ব দেওয়া হতে পারে।’’

এইচপি ক্যাম্পে ডাক পাওয়া ২৫ জন ক্রিকেটার প্রথম পর্বে ২৬ নভেম্বর পর্যন্ত অনুশীলন করবেন। অধিকাংশ তরুণ ক্রিকেটাররা এর মাঝেই খেলবেন তিন দলের ওয়ানডে টুর্নামেন্ট। মিরপুরে তা হবে ১১-২৩ অক্টোবর।

দেশের শীর্ষ ক্রিকেটারদের সঙ্গে প্রতিযোগিতামূল আসরে খেলবে আকবর-ইমনরা। তিনটি দলে ভাগ হয়ে লড়বেন অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ জিতে আসা দলের ১২ ক্রিকেটার। বড়দের সঙ্গে ছোটরা কেমন করে সেটি দেখতে মুখিয়ে আছেন সবাই।

ক্যাম্পের প্রথম দিন বিপ টেস্টে তরুণ খেলোয়াড়দের ফলাফল মুগ্ধ করেছে দুর্জয়কে। করোনা বিরতির পরও প্রায় সব ক্রিকেটারই নিজেদের ফিট রাখতে পেরেছেন। ব্যাপারটা খুবই ইতিবাচকভাবে দেখছেন বাংলাদেশের প্রথম টেস্টের অধিনায়ক।

‘’এটাকে আমরা একটি সুযোগ (তিন দলের আসর) বলতে পারি। যেহেতু কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতে খেলোয়াড়রা অনলাইনে কোচদের সাথে, বিশেষ করে ফিটনেস নিয়ে তারা মনোযোগী হয়েছে এবং আজকে কিন্তু ফিটনেট টেস্টে খুব ভালো করেছে। ২৫ জনের ভেতরে আসলে ২-১ জনের সমস্যা হতেই পারে। কিন্তু সবমিলিয়ে ফিটনেস টেস্টে তারা ভালো করেছে। ওদের মাছে দায়িত্ববোধ আছে, সিরিয়াস আছে নিজেদেরকে প্রস্তুত করার জন্য। আর জাতীয় দলের সঙ্গে তারা যে সিরিজটা খেলবে এটা একটা সুযোগ।’’

BSH
Bellow Post-Green View