চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Cable

অবসর ভাঙছেন টেলর?

Nagod
Bkash July

বছরের শুরুর দিকে সবধরনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বলেছেন রস টেলর। তবে ব্যাগ-প্যাড গোছানো হয়নি। আপাতত কোচিং ক্যারিয়ার নিয়েও ভাবতে চান না ৩৮ বর্ষী নিউজিল্যান্ড কিংবদন্তি। এখনও ক্রিকেটই উপভোগ করছেন। যতটা পারেন খেলা চালিয়ে যেতে চান ঘরোয়ায়। মিলছে অবসর ভাঙার আভাসও!

Reneta June

সপ্তাহের শুরুতে জন্মদিনের সম্মানে সাবেক অধিনায়ককে অর্ডার অব মেরিট সম্মাননা দেয় নিউজিল্যান্ড। এসময় এমন প্রশ্ন ছুটে আসে, ক্রিকেট পরবর্তী ভাবনায় কোচিং ক্যারিয়ার বেছে নেয়ার ইচ্ছে আছে কিনা। জবাবে বলেছেন, আমাকে কখনও কোচিং করাতে বলবেন না।

‘কখনই কোচিং করাতে বলবেন না। প্রথমত আমি এখনও খেলাটি খেলতে পছন্দ করি। যতটা পারি চেষ্টা করতে চাই এবং যতটা পারি খেলতে চাই।’

টেলর মাওরি ক্রিকেটের সাথে জড়িত। নতুন করে তার এই মন্তব্যের পর অবসর ভাঙার স্বপ্ন দেখা শুরু করেছেন সমর্থকরা। অন্যদিকে ইংলিশদের ডেরায় খাবি খাচ্ছে কিউই দল। যা আর সবার থেকে একটু বেশিই কষ্ট দিচ্ছে তাকে। অবসর না নিলে অবধারিতভাবেই থাকতেন ইংলিশ সফরের দলে। লর্ডস টেস্ট যে মিস করেছেন জানিয়েছেন সেটিও।

‘আমি গ্রীষ্মে সেন্ট্রাল ডিস্ট্রিক্টের সাথে খেলার জন্য উন্মুখ। কিছু টুর্নামেন্ট আছে যেগুলোতে যাওয়ার জন্য সাইন আপ করেছি। এখনও ক্রিকেট খেলাটা উপভোগ করি। যেকোনো উপায়ে এটিতে ফিরে আসতে পারি। লর্ডসকে ভীষণ মিস করেছি।’

টেলরের সাবেক দুই সতীর্থ ব্রেন্ডন ম্যাককালাম ও ড্যানিয়েল ভেট্টরি ইতিমধ্যেই ঢুকে পড়েছেন কোচিং ক্যারিয়ারে। সাফল্যও পাচ্ছেন। তাদের মতো ক্যারিয়ার গড়তে চান কিনা এমন প্রশ্নে ক্রিকেট পরবর্তী জীবনে সফল হতে চান বলে জানিয়েছেন টেলর।

‘সম্ভবত এই মুহূর্তে কোচিং নয়। তবে অনুমান করছি একজন ব্যাটিং কোচ বা একজন প্রধান কোচ হলে কেমন হয়। অনেক খেলোয়াড়ের সাথে খেলেছি, যাদের সাথে কখনই কোচ হতে পারব বলে ভাবিনি। আমাদের আরও অপেক্ষা করতে হবে এবং দেখতে হবে। একটি কাজে সফল হয়েছি, আশা করি ক্রিকেটের পরেও সেই সফলতা ধরে রাখতে পারব।’

BSH
Bellow Post-Green View