চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Group

স্বামীকে হত্যার মামলায় স্ত্রীসহ ৩ জনের মৃত্যুদণ্ড

Nagod
Bkash July

জয়পুরহাটে পরকিয়ার জের ধরে স্বামীকে হত্যার মামলায় স্ত্রীসহ তিন আসামীর মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। 

বৃহস্পতিবার দীর্ঘ শুনানী শেষে দুপুরে জয়পুরহাট জেলা ও দায়রা জজ মো: নুর ইসলাম জনাকীর্ণ আদালতে মৃত্যুদণ্ডের এ আদেশ দিয়েছেন।

দন্ডপ্রাপ্ত আসামীরা হচ্ছেন- দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার ডুগডুগি দেওগ্রামের নিহত রহিম বাদশার স্ত্রী আকলিমা বেগম (২৭), শালগ্রামের সেলিম  হোসেন (৩৪) ও একই এলাকার গোপালপুর গ্রামের আইনুল হোসেন (৩৭)। মামলায় জামিন নেয়ার পর থেকে আসামী আকলিমা বেগম পলাতক থাকলেও অন্য দুই আসামীর উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করা হয়।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার ডুগডুগি দেওগ্রামের রহিম বাদশা ছিলেন মাইক্রোবাস চালক। তার সহকারি ছিলেন একই এলাকার শালগ্রামের আসামী সেলিম হোসেন। সেই সূত্র ধরে বাড়িতে যাতায়াতের এক পর্যায়ে সেলিম রহিম বাদশার স্ত্রী আকলিমা বেগমের সাথে অবৈধ সম্পর্ক গড়ে তোলে। সেই সম্পর্ক পোক্ত করতেই সেলিম তার বন্ধু আইনুলকে সাথে নিয়ে রহিম বাদশাকে হত্যার পরিকল্পনা করে। পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০১৬ সালের ১০ জুলাই বাড়ি ফেরার পথে পাঁচবিবি উপজেলার বারোকান্দি সড়কে রহিম বাদশাকে তারা গলা কেটে হত্যার পর মাইক্রোবাসে রেখে পালিয়ে যায়।

পরের দিন ১১ জুলাই তার লাশ উদ্ধারের পর নিহতের বাবা শাহাদত হোসেন অজ্ঞাতনামা আসামী করে পাঁচবিবি থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলার তিনদিন পর পুলিশ সেলিম হোসেনকে গ্রেফতার করলে হত্যার মূল রহস্য উদঘাটন হয়। পরে মামলার অপর দুই আসামীকেও পুলিশ গ্রেফতার করে। মামলায় জামিন নেয়ার পর থেকে আসামী আকলিমা বেগম পলাতক রয়েছে।

মামলায় দীর্ঘ প্রায় ৬ বছর উভয় পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে হত্যাকাণ্ডের সাথে সন্দেহাতীতভাবে জড়িত থাকার বিষয়টি প্রমাণ হওয়ায় আদালত আসামীদের বিরুদ্ধে এ রায় ঘোষণা করেন।

BSH
Bellow Post-Green View