চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

রেকর্ড, বিশ্বরেকর্ড, ড্রেসেল ও ‘হাই-৫’ সোনা

‘হাই-৫’, ক্যালেব ড্রেসেলের নামের পাশে এখন এটিই জুড়ে দিচ্ছেন গুণমুগ্ধরা। টোকিও অলিম্পিকের পুলে রাজত্ব চালিয়ে যে পাঁচটি স্বর্ণ পদক নিয়ে ফিরছেন যুক্তরাষ্ট্রের তারকা সাঁতারু।

রোববার টোকিওর পুলে আরেকবার ঝড় তুলেছেন ড্রেসেল। যুক্তরাষ্ট্রের সাঁতারু গলায় ঝুলিয়েছেন আরও দুটি সোনার পদক। যার একটিতে আবার গড়েছেন অলিম্পিক রেকর্ড।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

এদিন প্রথমে ছেলেদের ৫০ মিটার ফ্রিস্টাইলের ব্যক্তিগত ইভেন্টে নেমে অলিম্পিক রেকর্ড গড়েছেন ড্রেসেল। সোনা জিতেছেন ২১.০৭ সেকেন্ড সময় নিয়ে সাঁতার শেষ করে। যা তাকে দেয় চলতি গেমসে চতুর্থ সোনার হাসি।

পরে পাঁচ নম্বর স্বর্ণ পদকটি জিতেছেন ড্রেসেল। সেটি ছেলেদের ৪*১০০ মিটার মেডেলে রিলেতে দলগত ইভেন্টে বিশ্বরেকর্ড গড়ে, সোনা গেছে যুক্তরাষ্ট্রের ঝুলিতে। ৩ মিনিট ২৬.৭৮ সেকেন্ড সময় নিয়ে সাঁতার শেষ করেছেন ড্রেসেল ও সতীর্থরা।

বিজ্ঞাপন

যে দলে ড্রেসেল ছাড়াও ছিলেন রায়ান মারফি, মাইকেল অ্যান্ড্রিউ ও জ্যাচ অ্যাপেল। তারা রোমে ২০০৯ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপে গড়া ৩ মিনিট ২৭.২৮ সেকেন্ড টাইমিংয়ের আগের বিশ্বরেকর্ড ভেঙেছেন।

শনিবার ছেলেদের ১০০ মিটার বাটারফ্লাইয়ে নেমেছিলেন ড্রেসেল। পুলে ঝড় তুলে গড়েন বিশ্বরেকর্ড। যেটি টোকিও আসরে তাকে তৃতীয় সোনার হাসি এনে দেয়। বিশ্বরেকর্ড গড়ার পথে ৪৯.৪৫ সেকেন্ড সময় নিয়ে সাঁতার শেষ করেন। যা ২৪ বর্ষী সাঁতারুর গড়া নিজের আগের বিশ্বরেকর্ডের চেয়ে ০.০৫ সেকেন্ড কম সময়।

২০১৯ সালে কোরিয়ায় আগের বিশ্বরেকর্ডটি গড়েছিলেন তিনি, ৪৯.৫০ সেকেন্ড সময় নিয়েছিলেন এই ইভেন্ট শেষ করেছিলেন।

টোকিওয় ছেলেদের ১০০ মিটার ফ্রিস্টাইল ও ছেলেদের ৪*৪০০ মিটার ফ্রিস্টাইল রিলেতেও সোনা জিতেছেন ড্রেসেল।