চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কোয়ারেন্টাইনে বিরক্ত ভারতের সিরিজ বয়কটের হুমকি!

মেলবোর্ন থেকে সিডনি পৌঁছে কঠিন কোয়ারেন্টাইনের মধ্যে দিয়ে যেতে হবে অস্ট্রেলিয়া-ভারতের ক্রিকেটারদের। নিয়মের বালাই এতটাই কঠিন যে, জৈব নিরাপত্তা বলয় ভেঙে রেস্টুরেন্টে খেতে যাওয়ায় আইসোলেশনে যেতে হয়েছে ভারতের সহ-অধিনায়ক রোহিত শর্মাসহ পাঁচজনকে।

জৈব নিরাপত্তা বলয়টা ব্রিসবেনে চতুর্থ টেস্টেও ধরে রাখতে চায় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। এতে বিরক্ত সফরকারী ভারতের ক্রিকেটাররা। কোয়ারেন্টাইনের বাড়াবাড়িতে হুমকি এসেছে সিরিজ বয়কটেরও!

বিজ্ঞাপন

সিডনির উত্তর প্রান্তে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধির খবরের মাঝেই সোমবার নিউ সাউথ ওয়েলসে যাবে অস্ট্রেলিয়া ও ভারত দল। রোববারও সিডনিতে আটজনের দেহে কোভিড-১৯ ভাইরাসের সংক্রমণের খবর পাওয়া গেছে। সংক্রমণ বাড়তে থাকায় মেলবোর্ন টেস্ট শেষ হওয়ার পর সিডনি না গিয়ে কোয়ারেন্টাইনে ছিলেন ক্রিকেটাররা।

বিজ্ঞাপন

৭ ডিসেম্বর সিডনি টেস্ট শুরু হবে, ১৫ ডিসেম্বর ব্রিসবেনে যাওয়ার কথা দুদলের খেলোয়াড়দের। সেই টেস্ট নিয়ে শুরু হয়েছে খানিকটা অনিশ্চয়তা। নিউ সাউথ ওয়েলসের সঙ্গে এরইমধ্যে কুইন্সল্যান্ড প্রদেশের সীমান্ত বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এরমাঝে সেই প্রদেশে গেলে ঠাসা জৈব ব্যবস্থার মধ্যে থাকতে হতে পারে ক্রিকেটারদের।

অস্ট্রেলিয়ান গণমাধ্যমের খবর, কুইন্সল্যান্ডের সুরক্ষা বলয়কে বাড়াবাড়ি মনে করছেন ভারতীয় দলের সদস্যরা। টানা ছয় মাস সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে থাকতে থাকতে বিরক্ত তারা। হুমকিও নাকি দিয়েছেন বেশি কড়াকড়ি হলে ব্রিসবেন টেস্ট খেলবেন না ভারতীয়রা! যদিও এ বিষয়ে দলটির মুখপাত্র কোনো কথা বলেননি।

সিরিজ খেলতে অস্ট্রেলিয়ায় নামার পর ১৪দিন কোয়ারেন্টাইনের মধ্যে যেতে হয়েছে ভারতীয় দলকে। পরে সিরিজজুড়ে খেলার সময় খানিকটা স্বাধীনতা আশা করেছিলেন তারা, কিন্তু উল্টে গেছে পুরো দৃশ্য। মেলবোর্নের রেস্টুরেন্টে খেতে গিয়ে পাঁচ ক্রিকেটারকে যেতে হয়েছে কোয়ারেন্টাইনে। নিরাপত্তা বলয় ভাঙায় তাদের জরিমানা করা হতে পারে।

অজি ব্যাটসম্যান ম্যাথু ওয়েডও বলছেন ব্রিসবেনের কোয়ারেন্টাইন সিডনির চেয়ে কঠিন হবে। তবে সূচি উল্টে যাবে সেই শঙ্কাকে উড়িয়ে দিয়েছেন বাঁহাতি এ ব্যাটসম্যান।