চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Cable

অ্যাকশন নির্ভরতা বাড়ছে ‘এক্সট্র্যাকশন টু’তে, প্রস্তুত ক্রিস

অস্ট্রেলিয়ায় নয়, ইউরোপের দেশ চেক প্রজাতন্ত্রের রাজধানী প্রাগ শহরে চলতি মাসেই শুরু হবে ‘এক্সট্র্যাকশন ২’ এর শুটিং…

Nagod
Bkash July

এখন পর্যন্ত নেটফ্লিক্সের সবচেয়ে বেশি সাড়া জাগানোর ছবির তালিকায় নাম উঠে এসেছে ক্রিস হেমসওয়ার্থ অভিনীত ‘এক্সট্র্যাকশন’ ছবিটি। গেল বছর ছবিটি মুক্তির পর পরই সিক্যুয়াল নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছিলেন প্রযোজক জো রুশো।

Reneta June

শুধু তাই নয়, সেসময় ‘এক্সট্র্যাকশন’র সিক্যুয়াল লেখার কাজও শুরু করেছেন বলে জানিয়েছিলেন এই প্রযোজক ও নির্মাতা। যার চিত্রনাট্য আরও ভালো হবে বলেছিলেন তিনি।

তারই ধারাবাহিকতায় ঘোষণা এসেছে চলতি মাসের শেষের দিকে শুটিং শুরু হবে ‘এক্সট্র্যাকশন’র সিক্যুয়ালের।

করোনার কারণে অস্ট্রেলিয়ায় হচ্ছে না ‘এক্সট্র্যাকশন ২’ এর শুটিং। তবে অনুমতি মিলেছে ইউরোপের দেশ চেক প্রজাতন্ত্রের রাজধানী প্রাগ শহরে। সেখানেই হবে এর শুটিং।

আর তাইতো আসন্ন ছবিটির শুটিংয়ের প্রস্তুতি নিতে ব্যাপক ব্যস্ত অভিনেতা ক্রিস হেমসওয়ার্থ। কয়েক দিন আগেই এক ভিডিওতে হেমসওয়ার্থ তার শরীরকে ‘এক্সট্র্যাকশন টু’র জন্য প্রস্তুত করছেন বলে জানান।

ইনস্টাগ্রামে দেয়া ওই ভিডিওতে দেখা যায়, ক্রিসের বডি ফিটনেসের ট্রান্সফরমেশন। পাশাপাশি সেই ট্রান্সফরমেশনকে বহাল রাখতে প্রচণ্ড ঘাম ঝরাচ্ছেন এই সুপারস্টার।

জানা গেছে, ‘এক্সট্র্যাকশন’ এর তুলনায় এর সিক্যুয়ালে আরও অনেক বেশি স্ট্যান্ট ও অ্যাকশন থাকবে। যা ছবিটির প্রতি দর্শকদের আকর্ষণ আরো বাড়িয়ে তুলবে।

‘এক্সট্র্যাকশন’ ছবিটির কাহিনী মূলত বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকাকে ঘিরে সাজানো হয়েছিল। মুম্বাইয়ের এক গ্যাংস্টারের ছেলেকে অপহরণ করে ঢাকায় আটকে রাখে বাংলাদেশের এক গ্যাংস্টার। সেই ছেলেকে ঢাকা থেকে উদ্ধার করতে আনা হয় একজন মার্সেনারি ক্রিস হেমসওয়ার্থকে। ছবিতে যাকে ‘টাইলার রেক’ চরিত্রে অভিনয় করতে দেখা যায়। এরপর চলে একের পর এক অভিযান।

ক্রিস হেমসওয়ার্থ ছাড়াও ছবিতে অভিনয় করেছিলেন হলিউডের ডেভিড হারবার, ডেরেক লুকের মতো তারকারা। এছাড়া বলিউড থেকে দেখা গিয়েছিল পঙ্কজ ত্রিপাঠি ও রনদীপ হুদার মতো অভিনেতাদের। তবে ছবিটির সিক্যুয়ালে কারা অভিনয় করবেন সেসম্পর্কে এখনও ঘোষনা আসেনি।

BSH
Bellow Post-Green View