চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বাংলাদেশ অধিনায়কের ভোট পাননি মেসি-রোনালদো

প্রত্যাশিত পারফরম্যান্স না করেও ফিফা বেস্ট অ্যাওয়ার্ডের সেরা তিনে ছিলেন চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ও লিওনেল মেসি। সেরার ছোট্ট তালিকায় থাকলেও ভোটে এবার তেমন সাড়া পাননি দুই মহাতারকা। এমনকি বাংলাদেশ অধিনায়ক জামাল ভুঁইয়ার তিন ভোটের একটিও যায়নি তাদের পক্ষে!

সর্বোচ্চ ৫২ ভোট পেয়ে রোনালদো-মেসিকে টপকে ফিফা দ্য বেস্ট হয়েছেন বায়ার্ন মিউনিখের পোলিশ ফরোয়ার্ড রবার্ট লেভান্ডোভস্কি। ৩৮ ভোট পেয়ে রোনালদো দ্বিতীয়, আর ৩৫ ভোটে মেসি হয়েছেন তৃতীয়। ক্রীড়া সাংবাদিক, জাতীয় দল কোচ ও অধিনায়কের ভোটে নির্বাচিত হন ফিফার বর্ষসেরা ফুটবলার।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশ জাতীয় দলের অধিনায়ক হিসেবে ভোট দিয়েছেন জামাল ভূঁইয়াও। ভোটারদের সিলমোহর উন্মোচিত হওয়ার পর দেখা যাচ্ছে, জামালের তিন ভোটের কোনটিই যায়নি মেসি বা রোনালদোর ঝুলিতে। লাল-সবুজ অধিনায়ক নিজের প্রথম ভোটটি দিয়েছেন এবারের বর্ষসেরা লেভান্ডোভস্কিকে। দ্বিতীয়টি পেয়েছেন লিভারপুলকে ৩০ বছর পর ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ জেতানোর অন্যতম কারিগর সাদিও মানেকে।

জামাল নিজে মিডফিল্ডার। তার তৃতীয় ভোটটি পেয়েছেন একজন মাঝমাঠের কারিগর। তিনি বায়ার্নকে ট্রেবল জেতানো দলের ও লেভান্ডোভস্কির ক্লাব সতীর্থ স্প্যানিশ মিডফিল্ডার থিয়াগো আলকানতারা।

অধিনায়ক ভোট না দিলেও মেসি-রোনালদো ভোট পেয়েছেন বাংলাদেশ কোচ জেমি ডের থেকে। লাল-সবুজের ইংলিশ কোচ প্রথম ভোটটি দিয়েছেন রোনালদোকে, দ্বিতীয়টি মেসিকে। জেমির তৃতীয় ভোটে ছিল চমক, যেটি কোনো ফরোয়ার্ড কিংবা মিডফিল্ডার পাননি, পেয়েছেন একজন ডিফেন্ডার। রিয়ালকে ২০১৯-২০ লা লিগা জেতানো সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার সার্জিও রামোস পেয়েছেন বাংলাদেশ কোচের তৃতীয় ভোটটি!