চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

নির্বাচন প্রক্রিয়াকে ডিজিটাল করে দিতে ইইউ’র আগ্রহ

<br><br>বাংলাদেশ চাইলে নির্বাচন প্রক্রিয়াকে পুরো ডিজিটাল করে তুলতে সহযোগিতা করবে ইউরোপীয় ইউনিয়ন(ইইউ)। ইইউ রাষ্ট্রদূত পিয়েরে মায়োদোন জানিয়েছেন ডিজিটাল করে তোলার মাধ্যমে টেকসই ভোটিং প্রক্রিয়া গঠনে সহায়তা করার আগ্রহ থাকলেও, বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে হস্তক্ষেপে আগ্রহ নেই তাদের।<br><br>ঢাকাসহ তিন সিটি করপোরেশনের সদ্য সমাপ্ত নির্বাচনে, কিছু কেন্দ্রে ভোটিং দুর্বলতার কথা উল্লেখ করে অসন্তোষ জানিয়েছিলো ইইউ। স্বচ্ছ নির্বাচনী প্রক্রিয়া গড়ে তোলার আহ্বানও ছিলো তাতে। এবার সেই নির্বাচনী প্রক্রিয়া ডিজিটাল করে গড়ে তুলতে সহযোগিতার আশ্বাস দিলেন ইউরোপিয় ইউনিয়নের রাষ্ট্রদূত।<br><br>তিনি বলেন, তারা দীর্ঘদিন ধরেই বাংলাদেশের গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া খেয়াল করছেন। সুশীল সমাজ ও তাদের অংশীদারদের সঙ্গে মিলে নির্বাচনটাও পর্যবেক্ষণ করেন। সেই তাগিদ থেকেই তারা চান নির্বাচন প্রক্রিয়াটি স্বচ্ছ, অবাধ ও নিরপেক্ষ হোক।<br><br>ইউরোপীয় ইউনিয়ন এর আগেও ভোটিং প্রক্রিয়া ইলেক্ট্রনিক করে দিতে নিজেদের আগ্রহের কথা জানিয়েছিলো।নির্বাচন কমিশনও তাদের এ প্রস্তাবে রাজী ছিলো। কিন্তু তখন আপত্তি জানায় বিএনপি।ফলে সে যাত্রায় সম্ভব না হলেও এবার নির্বাচনের কাজে ব্যবহৃত যন্ত্রাদি ছাড়াও কারিগরি সহায়তা দিতে প্রস্তুত ইউরোপের এই জোট।<br><br>ইইউ রাষ্ট্রদূত আরো বলেন, তারা নাইজেরিয়াতেও নির্বাচনি প্রক্রিয়া ডিজিটাল করতে সহায়তা করেছেন। যদি বাংলাদেশ সরকার কিংবা নির্বাচন কমিশনের আগ্রহ থাকে তবে এখানেও ইলেক্ট্রনিক ভোটিং প্রক্রিয়া গড়ে তুলতে সহযোগিতা করতে আগ্রহী তারা। <br><br>রাষ্ট্রদূত জানান, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে তাদেরকে এখনও কোনো আনুষ্ঠানিক প্রস্তাব দেয়া হয়নি। তবে এরই মধ্যে বাংলাদেশের নির্বাচন প্রক্রিয়া ও কোনো নকশা বাংলাদেশের জন্য প্রযোজ্য হবে তা নিয়ে গবেষণা করছে সুশাসন, আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন আর মানবাধিকার ইস্যুতে বাংলাদেশের দীর্ঘ দিনের বন্ধু ইউরোপিয় ইউনিয়ন।

Bellow Post-Green View