চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

তাসকিনের কোনো ‘ডে অফ’ নেই!

ভীষণ ব্যস্ত ‘ঢাকা অ্যাটাক’-এর সেই জিসান ওরফে তাসকিন রহমান। গেল নভেম্বর থেকে তার দিন কাটছে লাইট-ক্যামেরার ঝলকানির মধ্যে! এমনকি গভীর রাত পর্যন্ত শুটিং করতে হচ্ছে শুধুমাত্র শিডিউল মেলানোর জন্য। এই অভিনেতার হাতে বর্তমানে আছে সাতটি চলচ্চিত্র। তাসকিন জানালেন, তার কোনো ‘ডে অফ’ নেই!

পরিচালক সৈকত নাসিরের ‘ক্যাসিনো’, এম রাহিমের ‘শান’, দীপঙ্কর দীপনের ‘ঢাকা ২০৪০’, ‘অপারেশন সুন্দরবন’, সৌরভ কুন্ডু’র ‘গিরগিটি’, ফয়সাল আহমেদ ও সানী সানোয়ারের ‘মিশন এক্সট্রিম’ ও সাইফ চন্দনের ‘ওস্তাদ’। এসব ছবিতে কাজ করছেন তাসকিন। মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) শুটিংয়ের মাধ্যমে ‘ক্যাসিনো’ শেষ করছেন তাসকিন।

Reneta June

চ্যানেল আই অনলাইনের সঙ্গে আলাপে তাসকিন বলেন, সোম-মঙ্গলবার দুদিন কাজের মাধ্যমে ক্যাসিনো শেষ করছি। মঙ্গলবার (৭ জানুয়ারি) শুটিং করছি ৩০০ ফিট একালায়। এরমধ্যেই চলছে ‘ওস্তাদ’র শুটিং। অনেক ম্যানেজ করে দুদিন সময় দিয়ে ‘ক্যাসিনো’ শেষ করছি।

বিজ্ঞাপন

ক্যাসিনো’র পরেই তাসকিন বুধবার সাইফ চন্দনের ‘ওস্তাদ’ ছবিতে শুটিং করবেন একদিন। পরে আরেকদিন সময় দেবেন এই ছবির কাজে। তাসকিন বলেন, ওস্তাদের পর পরই ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত ‘মিশন এক্সট্রিম’-এর টানা শুটিং। এ ছবির শিডিউলের পরদিনই ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত যোগ দেব ‘শান’-এ। শানের পরেই শুরু করবো নতুন সিনেমা ‘গিরগিটি’। কয়েকদিন শুটিং করে তারপর শানের গানের শুটিংয়ে মুম্বাই যাবো। সেখান থেকে ফিরে আবার ‘অপারেশন সুন্দরবন’-এ যোগ দেব।

নিজের এই ব্যস্ত সিডিউল নিয়ে তাসকিন বললেন, গত নভেম্বর থেকে একটার পর একটা ছবির করে যাচ্ছি। হয়তো নিজের জন্য সময় বের করতে পারতাম, কিন্তু শুটিং ওয়েদার অনেক সময় প্রতিকূলে ছিল না, ঠিকমতো কাজ করা সম্ভব হয়নি। নতুন করে সিডিউল মিলিয়ে কাজ করতে হচ্ছে বলে বেগ পেতে হচ্ছে। তাই এখন কোনো ‘ডে অফ’ পাচ্ছি না। তারপরেও কাজটাকে প্রাধান্য দিচ্ছি, ভালো কাজের চেষ্টা করছি।

তিনি বলেন, প্রতিটি ছবিতে একটা থেকে অন্য চরিত্রে যেতে চ্যালেঞ্জ নিতে হচ্ছে। তবে এটাকে উপভোগ করছি। ছবিগুলো হাতে নেওয়ার কারণ, ম্যাক্সিমাম ছবির গল্প ও নির্মাতা ভালো। আমার মনে হয়েছে, এমন জনরার ছবি এ মুহূর্তে প্রচুর দরকার।

নতুন আরো একটি কাজের কথাও বললেন তিনি। তবে সেই প্রজেক্টটি নিয়ে আপাতত চুপ থাকছেন এই অভিনেতা। বললেন, নতুন প্রজেক্ট নিয়ে কথা চলছে। মার্চে শুরু হতে পারে। এ কাজটি করতে পারলে ব্লাস্ট কিছু হবে।