চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

যুক্তরাষ্ট্র স্বাধীনতা রক্ষায় সদা প্রস্তুত: ট্রাম্প

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্ররা নিজেদের স্বাধীনতা রক্ষায় সর্বদা প্রস্তুত রয়েছে।

এশিয়ায় ১২ দিনের ম্যারাথন সফরে প্রথম সফররাষ্ট্র হিসেবে জাপানে পৌঁছে এ কথা বলেন তিনি।

এ সময় নর্থ কোরিয়াকে ইঙ্গিত করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, কোনো জাতি বা স্বৈরশাসকেরই যুক্তরাষ্ট্রের সংকল্পকে অবমূল্যায়ন করা উচিত হবে না।

টোকিওর কাছাকাছি ইয়োকোটা বিমানঘাঁটিতে উৎফুল্ল মার্কিন ও জাপানি সেনা সদস্যদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, ‘কেউ না, কোনো স্বৈরশাসক, কোনো সরকার…কারোরই উচিত হবে না আমেরিকান সংকল্পকে ছোট করে দেখা।’

মার্কিন সেনা সদস্যদেরকে ট্রাম্প কথা দেন, তিনি নিশ্চিত করবেন যেন শান্তি ও স্বাধীনতা রক্ষার জন্য প্রয়োজনীয় সবরকম সহায়তা সামরিক বাহিনী পায়।

বিজ্ঞাপন

জাপান সফরে নর্থ কোরিয়ার পরমাণু কর্মসূচির বিষয় ছাড়াও বাণিজ্য নিয়ে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের সঙ্গে বৈঠক করবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এর আগে দুই রাষ্ট্রপ্রধান একসঙ্গে মধ্যাহ্নভোজ করবেন। তারপর দু’জনে এক রাউন্ড গলফও খেলবেন।

এছাড়াও রাষ্ট্রপতির বিশেষ ফ্লাইট এয়ারফোর্স ওয়ান জাপানে পৌঁছানোর ঠিক আগে ট্রাম্প সাংবাদিকদের জানান, তিনি আশা করছেন চলতি সফরে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে তার দেখা হতে পারে। কেননা যুক্তরাষ্ট্র নর্থ কোরিয়া ইস্যুতে তার সহায়তা চায়।

ডোনাল্ড ট্রাম্প-এশিয়া সফর
শিনজো আবের সঙ্গে গলফ খেলারও কথা রয়েছে ট্রাম্পের

শনিবার থেকে শুরু দীর্ঘ এশিয়া সফরে জাপানের পথে রওনা হওয়ার আগে ডোনাল্ড ট্রাম্প, ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া এবং তাদের সফরসঙ্গীরা প্রথমে যুক্তরাষ্ট্রের হাওয়াই অঙ্গরাজ্যে যান। সেখানে ইউএস প্যাসিফিক কমান্ডে প্রেসিডেন্ট একটি সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংয়ে অংশ নেন ট্রাম্প।

গত ২৫ বছরের ইতিহাসে এটাই কোনো মার্কিন প্রেসিডেন্টের সবচেয়ে লম্বা এশিয়া সফর। এর আগে এমন ম্যারাথন এশিয়া সফরে গিয়েছিলেন সিনিয়র বুশ, ১৯৯১ সালের শেষ থেকে ১৯৯২-এর শুরু পর্যন্ত।

প্রথমে ১১ দিনের সফর পরিকল্পনা করা হলেও শেষ গন্তব্য ফিলিপিন্সে ১৪ নভেম্বর অনুষ্ঠিতব্য ইস্ট এশিয়া সম্মেলনে অংশ নেয়ার জন্য ট্রাম্পের সফরের সময়সীমা একদিন বাড়ানো হয়। ওই সম্মেলনে ভারত এবং রাশিয়ারও যোগ দেয়ার কথা রয়েছে।

বিজ্ঞাপন