চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

জাতীয় সংসদে বিনোদন ক্লাবগুলোর কার্যক্রম নিয়ে উত্তপ্ত আলোচনা

জাতীয় সংসদে রাজধানীর বিনোদন ক্লাবগুলোর কার্যকলাপ নিয়ে উত্তপ্ত আলোচনা-সমালোচনা হয়েছে। দেশে মদ ও ক্লাবের সংস্কৃতি নিয়ে আওয়ামী লীগ ও বিএনপির সাংসদরা একে অন্যকে দোষারোপ করেন।

জাতীয় সংসদে মন্ত্রীদের জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্ব টেবিলে উপস্থাপনের পর পয়েন্ট অব অর্ডারে এসব বলেন সংসদ সদস্যরা।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম বলেন, জিয়াউর রহমান বাংলাদেশে মদের লাইসেন্স দিয়ে এবং স্টিমার ক্লাব করে বাংলাদেশে এসব শুরু করেছিলো। আর বিএনপির সংসদ সদস্যরা বলেছেন, কোন এমপি মন্ত্রী এসবে জড়িত নয়; আইন-শৃংখলা বাহিনী নিয়মিত ক্লাবগুলো থেকে মাসোহারা নেয়।

বিজ্ঞাপন

তারা আরও বলেন, বহুল আলোচিত বোট ক্লাব অন্যের জায়গা দখল করে করা হয়েছে। প্রশ্ন রাখা হয়, অভিজাত ক্লাবগুলোতে যে বিপুল পরিমাণ অর্থ দিয়ে সদস্য হতে হয় সেখানে কিভাবে সরকারী কর্মকর্তারা সদস্য হন?

আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম বলেন, স্বাধীনতার পর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশে মদ বিক্রি বন্ধ করেছিলেন। এ প্রসঙ্গ নিয়েও সংসদে সরকারীদল এবং বিএনপির মাঝে চ্যালেঞ্জ ছোড়াছুড়ি হয়।

পরে বাজেট সম্পর্কে সাধারণ আলোচনায় বিএনপির হারুনুর রশীদ নিজেকে বিরোধী দলের নেতা দাবী করলে তার প্রতিবাদ জানায় জাতীয় পার্টি। এ নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে সংসদ। পরে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী হারুনুর রশীদের বক্তব্য এক্সপাঞ্জের কথা বললে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।