চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Group

ক্ষোভে ‘ফুটবলের’ নাম পরিবর্তন চান মরিনহো

রেফারির ফাউলের সিদ্ধান্তে বিরক্ত রোমা কোচ

Nagod
Bkash July

সিরি আ’তে ‘খর্ব শক্তির’ জেনোয়ার বিপক্ষে প্রত্যাশিত ফল পায়নি হোসে মরিনহোর দল। ঘরের মাঠে প্রতিপক্ষকে শক্তিমত্তার পূর্ণরূপ দেখালেও জাল খুঁজতে ভুগতে হয়েছে গিয়ালোরোসিদের। ফলাফলও থেকেছে তাই গোলশূন্য ড্র’তে।

বল দখল, গোলে শট এবং আক্রমণে যোজন এগিয়ে থাকলেও জেনোয়ার সঙ্গে পয়েন্ট ভাগাভাগি করেই খুশি থাকতে হয়েছে মরিনহোর রোমা শিষ্যদের। যদিও হতাশাজনক ফল আর বিতর্কিত ফাউল মানতে পারছেন না ক্লাবটির বস মরিনহো।

ম্যাচ শেষে উগড়ে দিয়েছেন ক্ষোভ, আঙুল তুলেছেন রেফারির ফাউলের সিদ্ধান্ত এবং গোল বাতিলের দিকে। মরিনহোর মতে, জানিওলোকে দেয়া ফাউলটি কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। বলেছেন, নিরপেক্ষ দৃষ্টিতে এটি যদি ফাউল হয় তাহলে ফুটবল খেলারই নাম পরিবর্তন হওয়া উচিত।

‘রেফারি যদি সঠিক সিদ্ধান্ত নেন, তবে যে খেলাটি বহুবছর আগে থেকে মানুষের খেলায় পরিণত হয়েছে— তা পরিবর্তন হয়ে যাবে। যদি এটি আসলেই ফাউল হয়, তাহলে খেলাটি আর খেলা থাকবে না। ফুটবল খেলার নামই পরিবর্তন হয়ে যাবে।’ বলেছেন পর্তুগিজ কোচ।

ম্যাচে বিতর্কের শুরু হয় প্রথমবার যখন রোমা জালের দেখা পায় তারপর। ইতালিয়ান ২২ বর্ষী স্ট্রাইকার জানিওলো ডানপ্রান্ত থেকে দুরন্ত গতিতে জাল খুঁজে নেন। ম্যাচের নির্ধারিত সময়ের শেষ মিনিটে জয়সূচক গোল করে জার্সি খুলে বাঁধভাঙা উদযাপনেও মাতে, কিন্তু গোলটি নাকোচ করে দেয় রেফারি।

‘বিতর্কিত’ সিদ্ধান্তে মাঠেই রোষের মুখে পড়েন রেফারি। সিদ্ধান্ত ভিএআরে গড়ালেও ভাগ্য পরিবর্তন হয়নি গিয়ালোরোসিদের। ফাউলের সিদ্ধান্তে ক্ষোভ দেখিয়ে প্রথমে হলুদ কার্ড পরে লাল কার্ড দেখেন বাতিল হওয়া গোলের স্কোরার জানিওলো।

ম্যাচ শেষে নিকোলো জানিওলো ইনস্টাগ্রামে লিখেছেন, ‘তারা সবকিছু বাতিল করতে পারে, কিন্তু গোল উদযাপনটি আজীবন আমার মনে থাকবে।’

BSH
Bellow Post-Green View