চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কানাডা ফাইজার ভ্যাকসিন পাবে ডিসেম্বরের মাঝামাঝি

নিয়ন্ত্রকদের অনুমোদন চূড়ান্ত হলে আগামী সপ্তাহ থেকেই করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন পেতে পারে কানাডা। ডিসেম্বরের মধ্যেই দেশটি ফাইজার ভ্যাকসিনের প্রথম ব্যাচের দুই লাখ ৪৯ হাজার ডোজ পাবে।

সোমবার পার্লামেন্টে এই ঘোষণা দিয়েছেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো। দেশটির সংবাদমাধ্যম সিটিভি নিউজ থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

জাস্টিন ট্রুডো বলেন, ‘আগামী সপ্তাহ থেকে শুরু হতে যাওয়া টিকাদান হবে ধারাবাহিক প্রক্রিয়ায়। তবে আমাদের মনে রাখতে হবে যে শুরুতে আমাদের কাছে খুব অল্প পরিমাণ ভ্যাকসিন থাকবে, কারণ আমরা সবাই যেমন এর জন্য উন্মুখ হয়ে আছি তেমনি উৎপাদকদেরও ভ্যাকসিনটি উৎপাদন সক্ষমতার সীমাবদ্ধতা রয়েছে।’

বিজ্ঞাপন

আগামী বছর থেকে ব্যাপক আকারে উৎপাদন শুরু হবে বলে জানিয়ে কানাডার প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘তবে আমরা এই ২ লাখ ৪৯ হাজার ডোজ এই ডিসেম্বরেই পাবো। আর সবচেয়ে স্পর্শকাতর জনগোষ্ঠীর ওপর প্রয়োগ শুরু করতে পারবো।’

অন্যদিকে অন্টারিওর প্রিমিয়ার ডগ ফোর্ড সোমবার বলেছেন ভ্যাকসিন প্রাপ্তদের তালিকায় প্রথমেই রয়েছে শারীরিকভাবে দুর্বল ও ক্ষতিগ্রস্ত বৃদ্ধ ও তাদের তত্ত্বাবধায়ক এবং স্বাস্থ্যসেবায় নিয়োজিত কর্মীরা।

এরপরে আদিবাসী সম্প্রদায়ের প্রাপ্তবয়স্করা, রিটায়ারমেন্ট হোমসের বাসিন্দা এবং দীর্ঘস্থায়ী স্বাস্থ্যসেবা গ্রহণকারীরাও অগ্রাধিকারের দলে থাকবেন। তবে টিকাগুলি অন্যদের কাছে ব্যাপকভাবে পৌঁছাতে এপ্রিল পর্যন্ত সময় লেগে যেতে পারে।

উল্লেখ্য কানাডায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বৃদ্ধির সাথে সাথে মৃত্যুর মিছিল ও যেন বেড়েই চলেছে। অনেক ক্ষেত্রে করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণ করতে প্রিমিয়ার ও প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তাদের হিমশিম খেতে হচ্ছে। কানাডায় মৃত্যুর সংখ্যা ১২ হাজার ৭০০ ছাড়িয়ে গেছে।