চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: মৃতদের মধ্যে ৭৯ শতাংশ পুরুষ, ২০ শতাংশ নারী

করোনায় মোট মৃতের ৩ হাজার ৫৯১ জনের মধ্যে পুরুষ ২ হাজার ৮৪১ জন (৭৯ দশমিক ১১ শতাংশ) এবং নারী ৭৫০ জন (২০ দশমিক ৮৯ শতাংশ)।

শুক্রবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য দেওয়া হয়।

বিজ্ঞাপন

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায়, বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে নতুন করোনায় মৃতের ৩৪ জনের মধ্যে ত্রিশোর্ধ্ব দুজন, চল্লিশোর্ধ্ব চারজন, পঞ্চাশোর্ধ্ব ছয়জন, ষাটোর্ধ্ব ২২ জন রয়েছেন।

বিভাগীয় পরিসংখ্যান অনুসারে, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃতের ৩৪ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগে ১৮ জন, চট্টগ্রামে ২, সিলেটে ৪, রংপুরে ২, খুলনায় একজন, রাজশাহীতে ৪, বরিশালে একজন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে দুজন রয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সবচেয়ে বেশি ১৮ জন মারা গেছেন ঢাকা বিভাগে, চট্টগ্রাম বিভাগে ২ জন, রাজশাহী বিভাগে ৪ জন, খুলনা বিভাগে ১ জন, বরিশাল বিভাগে ১ জন, সিলেট বিভাগে ৪ জন, রংপুর বিভাগে ২ জন, ময়মনসিংহে ২ জন।

বয়সের হিসাবে এখন পর্যন্ত মারা যাওয়াদের মধ্যে শূন্য থেকে ১০ বছরের মধ্যে রয়েছেন ১৯ জন; যা শূন্য দশমিক ৫৩ শতাংশ। ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে ৩৪ জন; যা শূন্য দশমিক ৯৫ শতাংশ। ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ৯১ জন; যা দুই দশমিক ৫৩ শতাংশ। ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ২২৯ জন; যা ছয় দশমিক ৩৮ শতাংশ। ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৪৯১ জন; যা ১৩ দশমিক ৬৭ শতাংশ। ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে এক হাজার ১৪ জন; যা ২৮ দশমিক ২৪ শতাংশ এবং ৬০ বছরের ঊর্ধ্বে রয়েছেন এক হাজার ৭১৩ জন; যা ৪৭ দশমিক ৭০ শতাংশ।

এ পর্যন্ত বিভাগ ভিত্তিক বিশ্লেষণে ঢাকা বিভাগে মারা গেছেন এক হাজার ৭১৮ জন; যা ৪৭ দশমিক ৮৪ শতাংশ। চট্টগ্রাম বিভাগে ৮২৭ জন; যা ২৩ দশমিক শূন্য তিন শতাংশ। রাজশাহী বিভাগে ২৩৩ জন; যা ছয় দশমিক ৪৯ শতাংশ। খুলনা বিভাগে ২৭৯ জন; যা সাত দশমিক ৭৭ শতাংশ। বরিশাল বিভাগে ১৩৯ জন; যা তিন দশমিক ৮৭ শতাংশ। সিলেট বিভাগে ১৭০ জন; যা চার দশমিক ৭৩ শতাংশ। রংপুর বিভাগে ১৪৫ জন; যা চার দশমিক শূন্য চার শতাংশ এবং ময়মনসিংহ বিভাগে ৮০ জন; যা দুই দশমিক ২৩ শতাংশ।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়, নতুন করে সুস্থতার সংখ্যা বিভাগ ভিত্তিতে, ঢাকা বিভাগে ৬৩০ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ২৮০ জন, রংপুর বিভাগে ১৪০ জন, খুলনা বিভাগে ১৬৯ জন, বরিশাল বিভাগে ৬৪ জন, রাজশাহী বিভাগে ২৯১ জন, সিলেট বিভাগে ৩৬ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে ১৪২ জন।

এছাড়াও নতুন করে কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন এক হাজার ৭৯৮ জন, ছাড়া পেয়েছেন এক হাজার ৯৩৫ জন। এখন পর্যন্ত কোয়ারেন্টিনে যুক্ত হয়েছেন চার লাখ ৩৬ হাজার ৭৭৯ জন এবং ছাড়া পেয়েছেন তিন লাখ ৮৯ হাজার ১৭৩ জন। বর্তমানে কোয়ারেন্টিনে আছেন ৪৭ হাজার ৬০৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ৭৩৯ জন, ছাড়া পেয়েছেন ৬৮৪ জন। এ পর্যন্ত আইসোলেশনে যুক্ত হয়েছেন ৬০ হাজার ৭৫৯ জন এবং ছাড়া পেয়েছেন ৪০ হাজার ৯৯৬ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে আছেন ১৯ হাজার ৭৬৩ জন।