চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

করোনাভাইরাস: ঢাকা শহরকে সম্পূর্ণ লকডাউন চেয়ে রিট

ঢাকা শহরকে সম্পূর্ণ লকডাউন ঘোষণা চেয়ে ভার্চুয়াল হাইকোর্টে একটি রিট করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

অ্যাডভোকেট মো: মাহবুবুল ইসলামের পক্ষে জনস্বার্থে করা এই রিটটি বৃহস্পতিবার বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের হাইকোর্ট বেঞ্চে দাখিল করেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মনজিল মোরশেদ।

বিজ্ঞাপন

এই রিটে রোগীদের চিকিৎসার জন্য পর্যাপ্ত ‘হাই ফ্লো নাসাল অক্সিজেন ক্যানুলা’ সংগ্রহের আরেকটি নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে।

রিটে বলা হয়েছে: মহামারি করোনাভাইরাস এর ব্যাপক সংক্রমণে ঢাকা শহরে হাজার হাজার রোগী শনাক্ত হচ্ছে। এছাড়া ইতিমধ্যে দেশে ১ হাজারের অধিক মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। সরকার গত ১৮ এপ্রিল প্রফেসর মো: শহিদুল্লাহকে সভাপতি করে ১৭ সদস্যের একটি জাতীয় টেকনিক্যাল বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করেন। পরিস্থিতির ভয়াবহতা বিবেচনায় ওই কমিটি গত ৮ জুন এক সভায় কিছু সিদ্বান্ত গ্রহণ করেন সে সব সিদ্ধান্ত কার্যকরী করার সুপারিশ করেন। সিদ্ধান্ত ও সুপারিশগুলো হচ্ছে:

১) ঢাকা শহরকে কড়াকড়ভিাবে সর্ম্পূণ ‘লকডাউন’ করতে হব। তা না হলে মৃত্যু মেনে নিতে হবে। আর ‘এলাকা ভিত্তিক লকডাউন’ কোনো সুফল বয়ে আনবে না। আর হলুদ জোন, লাল জোন মিলেমিশে আছে। তাই ‘ঢাকাকে পুরোপুরি লকডাউন করতেই হবে।

২) বারবার পরামর্শ ও তাগিদ দেওয়ার পরেও জীবন বাঁচানোর প্রয়োজনীয় একটি চিকিৎসা কৌশল ‘হাই ফ্লো নাসাল অক্সিজেন ক্যানুলা’ ব্যবস্থা নিশ্চিত করা হয়নি। তাই দ্রুত এবং সর্বোচ্চ অগ্রাধিকারের ভিত্তিতে এই অক্সিজেন ক্যানোলার যোগার নিশ্চিত করতে হবে।

৩) চিকিৎসকরা মারা যাচ্ছেন এবং সংক্রমিত হচ্ছেন। তাদের চিকিৎসা-সুরক্ষা নিশ্চিত না হলে স্বাস্থ্যব্যবস্থা ভেঙে পড়বে। সুতরাং কোভিড-১৯ সংক্রমিত চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের যথাযথ চিকিৎসার জন্য অক্সিজেন সরবরাহের সার্বিক সুবিধাসহ আলাদা হাসপাতালের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।

তাই এই রিটে জাতীয় টেকনিক্যাল বিশেষজ্ঞ কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী ঢাকা শহরকে লকডাউন ঘোষণা করা এবং হাই ফ্লো নাসাল অক্সিজেন ক্যানুলা বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে।

মন্ত্রী পরিষদ সচিব, স্বাস্থ্য সচিব, অর্থ ও প্রধানমন্ত্রীর সচিবলায়ের সচিব, ডিজি হেলথ, স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অতিঃ সচিব (হাসপাতাল), অতিঃ সচিব (প্রশাসন), পুলিশ কমিশনার, র‍্যাবের ডিজি ও ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশনের মেয়রদের এই রিটে বিবাদি করা হয়েছে।