চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

আমাজনে অগ্নিকাণ্ড: লিওনার্দো’র প্রশ্ন, মিডিয়া কেন চুপ?

উদ্বিগ্ন হলি-বলি তারকারা

এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে পুড়ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় বন আমাজন। যা নিয়ে উদ্বিগ্ন এখন সারা বিশ্বের জনগণ। বিষয়টি নিয়ে নিজেদের উদ্বেগের কথা বলেছেন বিশ্বের সচেতন তারকারা।

সম্প্রতি বিষয়টিকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ইনস্টাগ্রামে বেশ কিছু ছবি শেয়ার করেছেন হলিউডের সুপারস্টার অভিনেতা লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিও। শুধু তাই নয়, এমন অগ্নিকাণ্ডে মিডিয়ার নিরবতা নিয়েও প্রশ্ন তুলেন ‘টাইটানিক’ খ্যাত এই তারকা।

বিজ্ঞাপন

আমাজন পোড়ার একটি ছবি দিয়ে লিও লিখেন, পৃথিবীর ফুসফুস বলা হয় আমাজনকে। অথচ এটি পুড়ছে দুই সপ্তাহ ধরে, কিন্তু কোনো মিডিয়া কাভারেজ নেই। এটা কেন?

প্রকৃতি নিয়ে বরাবরই সোচ্চার লিওনার্দো। এরআগেও আমাজন নিয়ে কথা বলেছেন তিনি। তার এমন সচেতনতার বিষয়টি বিশ্বের অন্য তারকাদেরও আমাজন নিয়ে সোচ্চার হতে যেনো সাহসী করে দিলো।

আর এ কারণেই বোধহয় আমাজন নিয়ে সোশাল মিডিয়ায় কথা বলতে দেখা গেছে বলিউড তারকাদেরও!

লিওনার্দো’র পোস্টটি শেয়ার করে বলিউড অভিনেত্রী আলিয়া ভাট টুইটারে লিখেন: এটি সত্যিই হৃদয় বিদারক। যেখানে ছবিগুলোতে দেখা যাচ্ছে কীভাবে আমাজনের সবুজ গাছপালাগুলো পুড়ে ধূসর রঙ ধারণ করছে।

বিষয়টি চোখ এড়ায়নি বলিউড অভিনেতা অর্জুন কাপুরের ও। তিনি টুইটারে লিখেছেন, আমাজন রেইনফরেস্টে আগুন খুবই ভীতিকর বিষয়। এটি যে সারা বিশ্বের উপর কী মারাত্মক প্রভাব ফেলতে পারে তা আমাদের কল্পনার বাইরে। সত্যিই বিষয়টি দুঃখজনক।

পৃথিবীর ফুসফুস খ্যাত আমাজনে অগ্নিকাণ্ডের বিষয়ে মুখ খুলেছেন বলিউডের ‘খিলাড়ি’ খ্যাত অভিনেতা অক্ষয় কুমারও। তিনি টুইটে লিখেছেন যে, দুই সপ্তাহেরও বেশি সময় যাবত আগুনে পুড়ছে আমাজন রেইনফরেস্ট, যা সত্যিই হৃদয় বিদারক ও আশংকাজনক। পৃথিবীতে যতটুকু অক্সিজেন আছে তার ২০ শতাংশ আসে আমাজন বন থেকে। তবে এবার এই কারণেই পৃথিবীর জলবায়ু অনেকাংশে পরিবর্তন হয়ে যাবে। কিন্তু আমাদের করনীয় কিছুই থাকবে না।

আমাজন নিয়ে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন অভিনেত্রী দিয়া মির্জা। ইনস্টাগ্রামে একটি ছবি দিয়ে তিনি বিশ্বমিডিয়ার নিরবতা ভেঙে সরব হওয়ার আহ্বান জানান।

এছাড়াও বর্তমান সময়ের তুখোড় অভিনেতা আয়ুষ্মান খুরানাও আমাজন পুড়ে যাওয়া নিয়ে দুঃখ প্রকাশ করেন।

Bellow Post-Green View