চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বিতর্কের মধ্যেই ‘কাশ্মীর ফাইলস’ এর সিক্যুয়েলের ঘোষণা

Nagod
Bkash July

গত ২০ নভেম্বর গোয়ায় বসে ভারতীয় আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের আসর। সেই উৎসবেই বিবেক অগ্নিহোত্রীর ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ ছবিটিকে ‘কুৎসিত ও অশ্লীল’ বলেছেন ইসরায়েলের পরিচালক ও উৎসবের জুরি প্রধান নাদাভ ল্যাপিড।

Reneta June

যার প্রেক্ষিতে মঙ্গলবার ছবিটির পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রী চ্যালেঞ্জ করেছিলেন যে, কেউ যদি তার ছবিকে ‘কুৎসিত ও অশ্লীল’ প্রমাণ করতে পারেন তবে নির্দেশনার কাজ ছেড়ে দেবেন তিনি। সেই ঘটনার ১ দিন না পার হতেই  নতুন ঘোষণা দিলেন বিবেক।

তিনি জানান, এ বার ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস: আনরিপোর্টেড’ বানাবেন তিনি। আসন্ন সেই ছবিতে কাশ্মীরে নিপীড়িতদের সত্য যা ঢাকা পড়ে থাকে, তাই তুলে ধরবেন।

বিবেক আরও জানান, ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ ছবিটির একটি দৃশ্যেও যদি ভুল তথ্য প্রদর্শন করা হয়ে থাকে, তা প্রমাণ করুন বিজ্ঞজনেরা। পরিচালকের সাফ কথা ছিল, যদি কেউ ভুল ধরতে পারেন এবং প্রমাণ দিতে পারেন, ছবি বানানো ছেড়ে দেবেন তিনি।

মাস কয়েক আগেও ‘দ্য কাশ্মীর ফাইল্‌স’ ঘিরে উত্তাল ছিল গোটা দেশ। যদিও ভারত সরকারের কাছ থেকে প্রশংসিত হয়েছিল ছবিটি। তবে সোমবার গোয়া চলচ্চিত্র উৎসবের শেষ দিনে জুরি বোর্ডের শীর্ষে থাকা ইসরায়েলি পরিচালকের এই মন্তব্য রীতিমতো অস্বস্তিতে পরে গিয়েছেন নরেন্দ্র মোদী সরকার।

নাদাভের এই মন্তব্যের পর ড্যামেজ কন্ট্রোল করতে নেমেছে ইফি-র জুরি বোর্ড। তারা সাফ জানিয়ে দিয়েছে, ‘‘সবটাই পরিচালকের ব্যক্তিগত মতামত।’’ এমনকি, ইসরায়েলি রাষ্ট্রদূত ক্ষমা চেয়েছেন ভারতীয় নাগরিকদের কাছে। বিনোদনের গণ্ডি পেরিয়ে ‘কাশ্মীর ফাইলস’ এই মুহূর্তে ভারতের জাতীয় রাজনীতির চর্চার বিষয়ে পরিণত হয়েছে।

সূত্র: ফিল্মিবিট

BSH
Bellow Post-Green View