চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ছোট শহরগুলোর ওপর নির্ভর করছে ‘যুগযুগ জিও’র ভাগ্য

শুক্রবার বড় পর্দায় মুক্তি পেয়েছে বরুণ ধাওয়ান এবং কিয়ারা আদভানি অভিনীত ছবি ‘যুগ যুগ জিও’। ফিল্ম ট্রেড এক্সপার্টরা মনে করছেন মুক্তির প্রথম দিনের আয় এবং অগ্রিম টিকেট বুকিং-এর পরিমাণ সন্তোষজনক হলেও ছবির ভাগ্য নির্ভর করছে ছোট শহরগুলোর ওপর।

দক্ষিণী সিনেমার একের পর এক হিট ছবির কাছে পিছিয়ে পড়ছে বলিউড সিনেমা। তবে ‘যুগ যুগ জিও’ সিনেমাটি নিয়ে বেশ আশাবাদী বলিউড। তারকাবহুল এই ছবি নিয়ে দর্শকদের উৎসাহ প্রথম থেকেই ছিল চরমে। মুক্তির প্রথম দিনে বক্স অফিসে ৮ কোটি ৫০ লক্ষ টাকার ব্যবসা করেছে এই ছবি। খুব খারাপ না হলেও প্রত্যাশা পূরণ করতে পারেনি ছবিটির প্রথম দিনের আয়।

Reneta June

তবে আশার বিষয় হলো ‘শমসেরা’র আগে বড় কোনো ছবি মুক্তি পাবে না সামনে। তাই ব্যবসা করার সময় পাবে ছবিটি। তবে ট্রেড এক্সপার্টদের মতে, ছবিটির ভাগ্য নির্ভর করছে ভারতের ছোট শহরগুলোর দর্শকরা কীভাবে গ্রহণ করবে, তার ওপরে। কারণ শুধু শহরের দর্শক দিয়ে বড় বাজেটের এই ছবিকে ব্যবসা সফল করা সম্ভব নয়।

বিজ্ঞাপন

চলচ্চিত্র প্রযোজক ও ট্রেড এক্সপার্ট গিরিশ জোহর বলেন, সবকিছুই ‘যুগযুগ জিও’-এর পক্ষেই আছে। অ্যাডভান্স টিকেট কেনার পরিমাণ ঠিক আছে, ট্রেলার ও মিউজিকও প্রশংসা পেয়েছে। প্রচারণাও খুব ভালো হয়েছে। আশা করছি ছবিটি ভালো করবে।’

বিশেষজ্ঞদের মতে, শনিবার ছবিটির ব্যবসা প্রায় ৩০ শতাংশ বাড়বে এবং রবিবারও ব্যবসা আরও ২০ শতাংশ বাড়তে পারে।

বরুণ-কিয়ারার জুটি ছাড়া এই ছবির অন্য মূল আকর্ষণ অনিল কাপুর আর নীতু কাপুরের জুটি। দীর্ঘ সময় পর এই ছবির মাধ্যমে নীতু কাপুর রুপালি পর্দায় প্রত্যাবর্তন করতে চলেছেন। রাজ মেহেতা পরিচালিত ‘যুগ যুগ জিও’ ছবিটি প্রযোজনা করেছে করণ জোহরের ধর্মা প্রোডাকশন আর ভায়াকম এইন্টিন।

সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস