চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Channeliadds-30.01.24Nagod

উৎসবমুখর পরিবেশে অনুষ্ঠিত হচ্ছে ডিআরইউ নির্বাচন

পেশাদার সাংবাদিকদের সংগঠন ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) কার্যনির্বাহী কমিটির নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে।

বৃহস্পতিবার ৩০ নভেম্বর সকাল ৯টা থেকে রাজধানীর সেগুনবাগিচার ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির নসরুল হামিদ মিলনায়তনে এ ভোটগ্রহণ শুরু হয়। চলবে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

দিনব্যাপী চলা এই ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠানে অংশ নিতে ও নিজেদের পছন্দের প্রার্থীকে জয়ী করতে সাংবাদিকদের এক উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে সেগুনবাগিচা এলাকাজুড়ে।

নির্বাচন কেন্দ্র করে শেষ মুহূর্তের প্রচার-প্রচারণায় ব্যস্ত সময় পার করছেন প্রার্থীরা। নানা প্রতিশ্রুতি নিয়ে ভোটারদের কাছে যাচ্ছেন তারা।

Reneta April 2023

এ নির্বাচনে প্রধান নির্বাচন কমিশনার হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন সিনিয়র সাংবাদিক মনজুরুল আহসান বুলবুল।

এছাড়া আরো কয়েকজন সিনিয়র সাংবাদিক তাকে সহযোগিতা করছেন।

ডিআরইউ নির্বাচনে মোট ২১টি পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়ে থাকে। এর মধ্যে একটি পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাংস্কৃতিক সম্পাদক হিসেবে মো. মনোয়ার হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন। বাকি ২০ পদে প্রার্থী হয়েছেন ৪০ জন।

এর আগে বুধবার ২৯ নভেম্বর ডিআরইউ বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়। ডিআরইউ সভাপতি মুরসালিন নোমানীর সভাপতিত্বে সভায় সাবেক ও বর্তমান নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

প্রার্থী যারা
এবারের নির্বাচনে সভাপতির পদে প্রার্থী হয়েছেন চারজন। তারা হলেন- কবির আহমেদ খান, সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, সৈয়দ শুকুর আলী শুভ এবং জহিরুল হক রানা। আর সাধারণ সম্পাদকের পদের জন্য প্রার্থী হয়েছেন মাইনুল হাসান সোহেল, আব্দুল্লাহ আল কাফি ও মহিউদ্দিন। সহ-সভাপতির পদে গাযী আনোয়ার, হালিম মোহাম্মদ এবং শফিকুল ইসলাম শামীম ভোট করছেন। যুগ্ম সম্পাদকের একটি পদে মাইদুর রহমান রুবেল এবং মিজানুর রহমান (মিজান রহমান) ভোট করছেন।

এছাড়া অর্থ সম্পাদক পদের জন্য লড়ছেন কামরুজ্জামান বাবলু এবং জাকির হুসাইন। সাংগঠনিক সম্পাদক পদে আছেন চারজন। তারা হলেন- আবদুল হাই তুহিন, হাসান জাবেদ, খালিদ সাইফুল্লাহ এবং এম এম জসিম। এছাড়া দপ্তর সম্পাদক পদে শাহাবুদ্দিন মাহতাব এবং রফিক রাফি। নারী বিষয়ক সম্পাদক পদে মাহমুদা ডলি এবং রোজিনা রোজী, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক পদে মেসবাহ উল্লাহ শিমুল এবং সুশান্ত কুমার সাহা।

তথ্যপ্রযুক্তি ও প্রশিক্ষণ সম্পাদক পদে রাশিম (রাশিম মোল্লা) এবং এস এম মোস্তাফিজুর রহমান (সুমন)। ক্রীড়া সম্পাদক পদে মাকসুদা লিসা এবং মাহবুবুর রহমান। আপ্যায়ন সম্পাদক পদে আমিনুল হক ভুঁইয়া এবং মোহাম্মদ ছলিম উল্লাহ (মেজবাহ)। কল্যাণ সম্পাদক পদে তানভীর আহমেদ এবং নার্গিস জুঁই প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। অন্যদিকে কার্যনির্বাহী সদস্যের সাতটি পদের জন্য আটজন প্রার্থী রয়েছেন । তারা হলেন- দেলোয়ার হোসেন মহিন, ফারহানা ইয়াছমিন (জুঁথী), হাবিবুর রহমান (হাবিব রহমান), হাসান ইমাম ইমরান, শরীফুল ইসলাম, মুহিববুল্লাহ মুহিব, রফিক মৃধা ও সাঈদ শিপন।

কোনো প্রার্থী না থাকায় নির্বাচনের আগেই সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন মনোয়ার হোসেন।