চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Cable

বাংলাদেশের উন্নয়ন সহযোগিতায় স্কটিশ পার্লামেন্টে `ক্রস পার্টি গ্রুপ অন বাংলাদেশ’ গঠন

ব্যবসা-বাণিজ্য, বিনিয়োগ, পর্যটন ও জলবায়ু সঙ্কট মোকাবেলাসহ বাংলাদেশের উন্নয়নে সহযোগিতার জন্য স্কটিশ পার্লামেন্ট থেকে ‘ক্রস পার্টি গ্রুপ অন বাংলাদেশ’ গঠন করা হয়েছে। স্কটল্যান্ডের বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের সংসদ সদস্য এবং প্রবাসী ব্যবসায়ী ও পেশাজীবীদের অংশগ্রহণে এই ক্রস পার্টি গ্রুপ স্কটিশ পার্লামেন্টে মতবিনিময় সভাও করেছে।

স্কটল্যান্ডে শেষ হলো ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক সংস্কৃতি সম্মেলন

স্কটল্যান্ডে শেষ হলো তিন দিনের ষষ্ঠ আন্তর্জাতিক সংস্কৃতি সম্মেলন। এডিনবরায় স্কটিশ পার্লামেন্টে আয়োজিত বিশ্ব-সংস্কৃতি বিনিময়ের সবচেয়ে বড় এই মঞ্চে এবার ২৯টি দেশ থেকে সংস্কৃতি মন্ত্রী এবং প্রতিনিধিরা অংশ নেন। বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করেছেন সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ। স্কটল্যান্ড থেকে হুমায়ুন কবিরের রিপোর্ট।

স্কটল্যান্ডে ক্লাইমেট চ্যালেঞ্জ ফেস্টিভ্যাল

জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে তাপমাত্রা বাড়ায় বিশ্বব্যাপী প্রাকৃতিক দুর্যোগ বাড়ছেই। এ বিষয়ে গণসচেতনতা সৃষ্টির পাশাপাশি জোরালো পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য স্কটল্যান্ডের এডিনবোরায় এলরেকের উদ্যোগে ক্লাইমেট চ্যালেঞ্জ ফেস্টিভ্যালের আয়োজন করা হয়। বৈশ্বিক করোনাভাইরাস পরিস্থিতির কারণে দীর্ঘদিন স্থবির থাকার পর, এবার ক্লাইমেট চ্যালেঞ্জ ফেস্টিভ্যাল আয়োজনের মধ্য দিয়ে স্কটল্যান্ডের এডিনবোরায় প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে আসে। কার্বন নির্গমণের মাত্রা কমানোর মাধ্যমে জলবায়ু পরিবর্তনের গতি কিভাবে কমিয়ে আনা সম্ভব তার ব্যাখ্যা ও প্রচারে সোচ্চার ছিল প্রায় পঞ্চাশটি…

তেহরানে ৪৫তম জাতীয় শোক দিবস পালন

ইরানের তেহরানস্থ বাংলাদেশ দূতাবাস ভাবগাম্ভীর্যপূর্ণ পরিবেশে ৪৫তম জাতীয় শোকদিবস পালন করেছে। দিবসটি উপলক্ষে (ইরানে করোনা পরিস্থিতির কারণে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে) আয়োজিত নানা কর্মসূচির অংশ হিসেবে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ, দিবসটি উপলক্ষে প্রদত্ত রাষ্ট্রপতি, পররাষ্ট্রমন্ত্রী, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী এবং ইউনেস্কোর মহাপরিচালকের বাণী পাঠ, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনীভিত্তিক স্থিরচিত্র ও প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শন, আলোচনা সভা এবং জাতির জনক ও অন্য শহীদগণের আত্মার মঙ্গল কামনায় বিশেষ প্রার্থনার আয়োজন করা হয়। এসময়…

সু চি’র রাজনীতি ও বিশ্বব্যাপি মুসলিমদের ভাগ্য

মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সু চির ভাষণ শুনে দেখলাম অনেকেই মনে করছেন, জাতিসংঘসহ বিভিন্ন দেশের চাপে সু চি তার ভাষণে এখন সুর নরম করে ফেলেছেন। আসলেই কি তাই! তিনি কি এতই কাঁচা রাজনীতিক যে তিনি জানতেন না, এত বড় একটি গণহত্যা করলে বিভিন্ন দেশ থেকে কিছু না কিছু প্রতিবাদ আসবেই! আমার তো মনে হয়, তিনি এর চেয়ে ঢের বেশি প্রতিবাদের জন্য প্রস্তুত থেকেই গণহত্যার অপকর্মটি শুরু করেছেন। কিন্তু তার প্রস্তুতি অনুযায়ী সেই পরিমাণ প্রতিবাদ হয়নি। আর এই যে ভাষণটি তিনি দিয়েছেন, আমার তো মনে হয় অনেক আগেই গণহত্যার পরিকল্পনার পাশাপাশি ভাষণের…