চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

হাংরিনাকি’র ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হলেন সাকিব আল হাসান

দারাজ বাংলাদেশের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান অ্যাপভিত্তিক ফুড ডেলিভারি কোম্পানি হাংরিনাকি’র ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হয়েছেন বিশ্বের এক নম্বর অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

সম্প্রতি হাংরিনাকি ও সাকিবের মধ্যকার এই চুক্তিটি স্বাক্ষরিত হয়। চুক্তি অনুযায়ী, সাকিব আগামী দুই বছরের জন্য হাংরিনাকির খাবার ডেলিভারি সেবার অ্যাম্বাসেডর হিসেবে কাজ করবেন।

বিজ্ঞাপন

এ উপলক্ষে সাকিব বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি, আগামী এক-দুই বছরের মধ্যে খাবার ডেলিভারি প্রতিষ্ঠান হিসেবে দেশসেরা প্ল্যাটফর্ম হবে হাংরিনাকি। তাইনআমি এই যাত্রার একটি অংশ হতে পেরে খুবই আনন্দিত এবং আমার প্রত্যাশা আমাদের এই পারস্পরিক সৌহার্দ্যপূর্ণ অংশীদারিত্ব আগামী দিনগুলোতেও অব্যাহত থাকবে।’

এখন থেকে হাংরিনাকির বিভিন্ন কার্যক্রমের অংশ হিসেবে সাকিব আল হাসানকে দেখা যাবে। অ্যাম্বাসেডর হিসেবে তিনি হাংরিনাকির বিভিন্ন টিভিসি/ওভিসি’তে থাকবেন এবং আরডিসিতেও অংশ নিবেন।

পাশাপাশি, সাকিব এখন থেকে হাংরিনাকির ফটোশুট, ফেসবুক লাইভ সেশন, ক্যাম্পেইন, মিট অ্যান্ড গ্রিট সেশন ও স্পন্সর করা অনলাইন বা টিভি শো’তে অংশগ্রহণ করবেন।

অব্যাহত আছে হাংরিনাকি’র ডেলিভারি সেবা
করোনাভাইরাস সংক্রমণ বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে মানুষের স্বাস্থ্যের কথা বিবেচনা করে, হাংরিনাকির প্রত্যাশা সবাই পরিবারের সাথে ঘরে থেকে সুরক্ষিত থাকুক। তাই রেস্টুরেন্ট, রাইডার এবং ক্রেতাদের মাঝে সমন্বয়ের মাধ্যমে তাদের কাছে প্রয়োজনীয় খাবার পৌঁছে দেয়ার মধ্য দিয়ে ভাইরাস সংক্রমণ রোধে ভূমিকা রাখবে হাংরিনাকি।

এ প্রতিকূল সময়ে ভোজনপ্রেমীরা যেন স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে পারেন, তাই সকল স্বাস্থ্যবিধি মেনে হাংরিনাকি’র রাইডাররা ডেলিভারি দিতে আর রেস্টুরেন্টগুলোর খাবার পরিবেশনের সকল প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে।

গ্রাহকদের সুবিধার বিষয়টি মাথায় রেখে হাংরিনাকি এখন তাদের প্লাটফর্মে কোরবানির ছাগল সরবরাহ করছে, যেখানে একজন গ্রাহক কেবল অর্ডারই করতে পারবেন না, পাশাপাশি ছাগল কোরবানির যাবতীয় পরিষেবা এবং রান্নার পরিষেবাও পেতে পারেন।

হাংরিনাকি’র কমার্শিয়াল হেড আবু সালেহ দিদার বলেন, ‘এই সঙ্কটকালীন সময়ে, সুরক্ষিত থাকা এবং ভাইরাস সংক্রমণ রোধের এটিই একমাত্র উপায়। সবাইকে নির্দেশিকা মেনে চলতে উদ্বুদ্ধ করার লক্ষ্যে হাংরিনাকি এবং এর রাইডাররা দৃঢ় মনোবলের সাথে ক্রেতাদের সেবাদানে প্রস্তুত, যাতে তাদের জন্য করোনা মহামারি বড় কোনো হতাশার কারণ না হয়।’

বিজ্ঞাপন