চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

স্টেরয়েড ব্যবহারে সালমানের নিষেধাজ্ঞা

ফিটনেসের দিক থেকে বলিউডের যে কোনো তারকার মধ্যে সব থেকে বেশি এগিয়ে ‘ভাইজান’ খ্যাত সালমান খান। নিয়মিত জিম ও ব্যায়ামের মাধ্যমে সর্বদাই নিজেকে ফিট রেখেছেন এই সুপারস্টার। তবে এর বাহিরে স্টেরয়েড নেওয়ার ব্যাপারে কঠোর ভাবে নিষেধাজ্ঞা জানিয়েছেন সালমান।

শরীরচর্চার বিষয়ে সম্প্রতি ‘বিং স্ট্রং’ নামক একটি ফিটনেস সরঞ্জাম ব্র্যান্ড চালু করেছেন সালমান। যা নিয়ে ব্যাপক উচ্ছ্বসিত তিনি। শরীরচর্চার ব্যাপারে নিজের মতামত ব্যক্ত করে সালমান জানান যে, কারোই স্টেরয়েড নেওয়া উচিত নয়। কারণ স্টেরয়েডের ব্যবহার শারিরিক নানা ক্ষতির কারণ ডেকে আনতে পারে। যারা এটি ব্যবহার করেন তাদের জন্য এটি খুবই ক্ষতিকারক। আশা করব কেউ ইচ্ছাকৃত কারণে এটি ব্যবহার করবেন না।

বিজ্ঞাপন

সালমান আরো জানান যে, আমি অনেক সুস্থ মানুষের ক্ষেত্রেই দেখেছি জিমে ব্যায়াম করতে গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন, এমনকি হঠাৎ মারাও গিয়েছেন। এর মূল কারণ মূলত হার্ট অ্যাটাক কিংবা পেশির টান। যা মূলত স্টেরয়েড মাত্রাতিরিক্ত স্টেরয়েড নেওয়ার ফলে হয়ে থাকে। মূলত এ কারণেই স্টেরয়েড নেওয়া উচিত না।

অভিনয়ের ক্ষেত্রে চরিত্রের প্রয়োজনে অনেক তারকাকেই নিজেদের ভেতর শারিরিক নানা পরিবর্তন আনতে হয়। সেক্ষেত্রে সালমান জানান, সর্বশেষ ‘সুলতান’ সিনেমাটির জন্য তার শারিরিক ওজন অনেকখানি বাড়াতে হয়েছিল। সেক্ষেত্রে তিনি শুধুমাত্র প্রোটিন শেক এবং কিছু সাপ্লিমেন্ট খেয়ে পরিবর্তনটি এনেছিলেন।

বর্তমানে সালমান ব্যস্ত তার পরবর্তী সিনেমা ‘রাধে’র শুটিং নিয়ে। এছাড়াও আসছে বড়দিনে মুক্তি পাবে তার ‘দাবাং’ ফ্র্যাঞ্জাইজের তৃতীয় কিস্তি ‘দাবাং থ্রি’।

Bellow Post-Green View