চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সিনেমা নির্মাণ বাড়াতে প্রযোজক সমিতির নতুন উদ্যোগ

সিনেমা নির্মাণ বাড়াতে নতুন উদ্যোগ নিয়েছে চলচ্চিত্রের ‘মাদার অর্গানাইজেশন’ প্রযোজক ও পরিবেশক সমিতি। নতুন প্রযোজকরা যাতে সিনেমা নির্মাণে উৎসাহী হন, সেজন্য প্রযোজক সমিতির বর্তমান কমিটি নতুন সদস্যদের ‘সদস্য ফি’ কমিয়েছে।

এ প্রসঙ্গে প্রযোজক সমিতি সভাপতি খোরশেদ আলম খসরু চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, প্রযোজক সমিতির সদস্যপদ গ্রহণ করতে লাগতো ১ লাখ ২ হাজার টাকা। কিন্তু আমরা নতুন ১০ জন প্রযোজককে মাত্র ১১ হাজার টাকায় সদস্যপদ দিয়েছি। এ নিয়মে ১ ডিসেম্বর থেকে ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত নতুন সদস্যদের আবেদন নেওয়া হয়েছে।

নতুন বছরের শুরুতে সিনেমা নির্মাণ বাড়াতে এই উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানান প্রযোজক নেতা খসরু। তিনি বলেন, প্রযোজক সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যদের সম্মতিতে এই উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

‘আগে আসলে আগে পাবেন’ এই ভিত্তিতে আমরা সুযোগ দিয়েছি। বিশটি আবেদন জমা পড়ে। এরমধ্যে বাছাই করে ১০ জন নতুন প্রযোজককে মাত্র ১১ হাজার টাকায় সদস্যপদ দিয়েছি। তারা ২০২০ সালের জুনের আগেই শেষ করবেন।

বিজ্ঞাপন

খোরশেদ আলম খসরু বলেন, আপাতত ১১ হাজার টাকায় প্রযোজক সমিতির সদস্যপদ হওয়ার অফার বন্ধ আছে। পূর্বের বেশকিছু আবেদন জমা আছে। কিছুদিন পর আবার এই সুযোগ দেবে প্রযোজক সমিতি। একটাই কারণ, নতুন বছরে সিনেমা নির্মাণ বৃদ্ধি।

তবে এই সদস্যপদ নিতে হলে অবশ্যই ‘কন্ডিশন মানতে হবে’ উল্লেখ করে প্রযোজক নেতা খসরু বলেন, ৬ মাসের মধ্যে সিনেমা করে সেন্সর করতে হবে। যারা ১১ হাজার টাকায় সদস্যপদ নিয়েছে তারা যদি ৬ মাসের মধ্যে সিনেমা শেষ না করে তাহলে ওই সদস্যপদ স্থগিত হয়ে যাবে। পরে আবার একলাখ দুই হাজার টাকা দিয়ে সদস্যপদ নিতে হবে।

এদিকে, আসন্ন নতুন বছর থেকে শুরু হতে যাচ্ছে এফডিসির ‘নতুন মুখের সন্ধানে’ কার্যক্রম। প্রযোজক সমিতির বর্তমান কমিটি এই নতুন মুখ খোঁজার প্রতিযোগিতায় সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে।

এ প্রসঙ্গে খোরশেদ আলম খসরু বলেন, আগামী বছরে বড় আয়োজনে এই প্রতিযোগিতা শুরু হবে। প্রযোজক সমিতি এই প্রতিযোগিতার সঙ্গে এবার ট্যাগ হয়েছে। ব্যাপকভাবে এই আয়োজন অনুষ্ঠিত হবে।

বিজ্ঞাপন