চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সালমানকে হারানোর দুই যুগ

ঢাকাই চলচ্চিত্রের ক্ষণজন্মা নায়ক সালমান শাহ’কে হারানোর দুই যুগ রবিবার (৬ সেপ্টেম্বর)। ১৯৯৬ সালের এই দিনে রহস্যজনক মৃত্যু হয় এই ‘স্বপ্নের নায়ক’ এর। প্রিয় অভিনেতার মৃত্যুর ২৪ বছর পরেও তার জন্য চোখের জল ফেলেন অসংখ্য ভক্তকূল।

নব্বই দশকের অন্যতম নায়ক সালমান শাহ’র প্রকৃত নাম শাহরিয়ার চৌধুরী ইমন। ৫ ফুট ৬ ইঞ্চি উচ্চতার এই অভিনেতা মাত্র চার বছরে ২৭টি চলচ্চিত্র অভিনয় করেন। এছাড়াও টেলিভিশনে তার অভিনীত গুটি কয়েক নাটক প্রচারিত হয়।

বিজ্ঞাপন

১৯৯৩ সালে তার অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত মুক্তি’ পায়। একই সিনেমাতে নায়িকা মৌসুমী ও গায়ক আগুনের অভিষেক হয়।

বিজ্ঞাপন

সালমান শাহ্‌ ১৯৭১ সালে সিলেট জেলায় অবস্থিত জকিগঞ্জ উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা কমর উদ্দিন চৌধুরী ও মাতা নীলা চৌধুরী। তিনি পরিবারের বড় ছেলে। সালমান শাহ ১২ আগস্ট ১৯৯২ বিয়ে করেন, এবং তার স্ত্রীর নাম সামিরা।

সালমানের মৃত্যুে বিষয়টি দীর্ঘদিন ধোঁয়াশার মধ্যে ছিলো। সর্বশেষ চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে তদন্ত সংস্থা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) জানিয়েছে, হত্যা নয় আত্মহত্যা করেছেন সালমান।

আত্মহত্যার কারণ হিসেবে পিবিআইয়ের রিপোর্টে বলা হয়, সালমান শাহ্ ও চিত্রনায়িকা শাবনূরের অতিরিক্ত অন্তরঙ্গতা, স্ত্রী সামিরার সঙ্গে দাম্পত্য কলহ, মাত্রাধিক আবেগ প্রবণতার কারণে একাধিকবার আত্মঘাতী হওয়ার বা আত্মহত্যার চেষ্টা, মায়ের প্রতি অসীম ভালোবাসা, জটিল সম্পর্কের বেড়াজালে পড়ে পুঞ্জিভূত অভিমানে রূপ নেওয়া এবং সন্তান না হওয়ায় দাম্পত্য জীবনে অপূর্ণতা।

তবে পিবিআইয়ের এমন রিপোর্ট প্রত্যাখ্যান করেন সালমানের মা নীলা চৌধুরী।

সালমানের মৃত্যুবার্ষিকীতে দেশে-বিদেশে ছড়িয়ে থাকা লাখো ভক্ত শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন নানাভাবে, নানা আয়োজনে। সালমান শাহর মৃত্যুদিন উপলক্ষে রবিবার বিকেলে শিল্পী সমিতির আর্টিস্ট স্টাডি রুমে দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে।