চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সবসময় মেজাজ খারাপ?

কোনো কারণ ছাড়াই কি সবসময় মেজাজ খারাপ থাকে? ঘুম না হওয়া কিংবা মানসিক চাপের কারণে অনেক সময় মেজাজ গরম থাকতে পারে। কিন্তু শারীরিক কোনো সমস্যার কারণেও কিন্তু মেজাজ খিটখিটে থাকতে পারে। জেনে নিন মেজাজ খারাপ থাকার শারীরিক কারণগুলো।

ডায়াবেটিস: ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ হতে পারে মেজাজ খিটখিটে থাকা। রক্তের চিনির তারতম্যের কারণে সেরোটোনিন লেভেলের তারতম্য হয়। সেরোটোনিনের সঙ্গে মন ভালো খারাপের সম্পর্ক আছে। তাই রক্তের চিনির পরিমাণ ঠিক না থাকলে মানসিক চাপ অনুভূত হতে পারে।

বিজ্ঞাপন

ভিটামিন ডি এর অভাব: নিয়মিত সূর্যের আলোর ছোঁয়া না পেলেও মন খারাপ থাকতে পারে। এর কারণ হলো ভিটামিন ডি এর অভাব। চেষ্টা করুন ভোরের মিষ্টি রোদ গায়ে লাগানোর। এতে সারাদিন মন ভালো থাকবে।

থাইরয়েড: থাইরয়েড হরমোন বেড়ে গেলে মেজাজ খিটখিটে থাকে। হাইপার থাইরয়েডের কারণে অস্থিরতা বেড়ে যায় এবং সহজেই ক্ষেপে যাওয়ার প্রবণতা দেখা দেয়।

অ্যালার্জি: প্রকৃতিতে কিছু পোলেন থাকে যেগুলো মনের উপরে প্রভাব ফেলে। এমনকি ঘুমের উপরেও প্রভাব ফেলতে পারে। টাইমস অব ইন্ডিয়া

বিজ্ঞাপন