চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কিডনি বিকল, লাইফ সাপোর্টে নায়ক শাহীন আলম

লাইফ সাপোর্টে রয়েছেন এক সময়ের ব্যস্ত চিত্রনায়ক শাহীন আলম। দীর্ঘদিন ধরে তিনি কিডনি ও ডায়াবেটিস রোগে ভুগছিলেন। অবস্থার অবনতি হলে শনিবার রাতে তাকে আজগর আলী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। 

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চিত্রনায়ক ওমর সানি। এ নায়ক বলেন, শাহীন আলম আমার বন্ধু। একসঙ্গে পথ চলা আমাদের৷ অভিনয়ে অসাধারণ। দীর্ঘ সময় চলচ্চিত্রের বাইরে। কিছুদিন আগে ওকে দেখতে গিয়েছিলাম। শুনলাম ওর কিডনি দুইটাই বিকল, ডায়ালাইসিস করছে বেশ কিছুদিন যাবৎ। গতকাল ওর ছেলে ফোন দিয়েছিল শুধু বলল- আঙ্কেল বাবা লাইফ সাপোর্টে, করোনা পজিটিভ। নিজেকে কন্ট্রোল করতে কষ্ট হচ্ছিল।

ওমর সানী বলেন, এমনিতেই কিডনি চিকিৎসায ব্যয়বহুল ব্যাপার তারপর আবার লাইফ সাপোর্ট। ওর পরিবারের অবস্থা ভালো। কিন্তু ব্যয়বহুল চিকিৎসার খরচ মেটাতে হলেতো রাজার ভাণ্ডারও শেষ হয়ে যায়। আল্লাহকে বলি, তুমি সুস্থতা দান করো, বন্ধুকে ফিরিয়ে দাও।

বিজ্ঞাপন

আর্থিক অসচ্ছ্বলতার কথা সরাসরি জানান শাহীন আলমের একমাত্র ছেলে ফাহিম নূর আলম। তিনি প্রধানমন্ত্রী ও চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্টদের কাছে বাবার চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহায়তা কামনা করে বলেন, আমার বাবার চিকিৎসার জন্য প্রতিদিন এক লাখের বেশি খরচ হচ্ছে, যা আমাদের জন্য টাফ হয়ে যাচ্ছে এমনকি আজগরআলী হাসপাতালের বিল পরিশোধ কীভাবে করবো, এটি নিয়েই এখনও ভাবছি।

তিনি বলেন, বাবা ছিলেন স্বনামধন্য একজন চলচ্চিত্র শিল্পী। আশা করবো এই মুহূর্তে প্রধানমন্ত্রী আমাদের পাশে থাকবেন। আর্থিকভাবে সাহায্য করার আবেদন করছি। আমার বাবাকে আরও অনেক দিন বাঁচিয়ে রাখতে চাই। সবাই দোয়া করবেন।

১৯৮৬ সালে নতুন মুখের সন্ধানের মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের সুযোগ পান শাহীন আলম। তার অভিনীত প্রথম সিনেমা ‘মায়ের কান্না’। এটি ১৯৯১ সালে মুক্তি পায়। এর পরে আরো অনেক ছবিতে অভিনয় করেন তিনি। বিতর্কিত চলচ্চিত্রেও দেখা গেছে তাকে। বর্তমানে চলচ্চিত্র থেকে দূরে রয়েছেন শাহীন আলম। নিজের ব্যবসা নিয়েই ব্যস্ত ছিলেন।

বিজ্ঞাপন