চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘ভোটার আইডি কার্ডের মাধ্যমে ভ্যাকসিন দেওয়ার কথা ভাবছে সরকার’

প্রান্তিক মানুষদের ভোটার আইডি কার্ডের মাধ্যমে ভ্যাকসিন দেওয়ার কথা সরকার ভাবছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেলে আইসিইউ সম্প্রসারণ ও ওপিডি শেডের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, আগামি ১০ দিনের মধ্যে কো-ভ্যাক্স জোট থেকে ২৯ লাখ ডোজ অক্সফোর্ড অ্যাস্টাজেনেকার ভ্যাকসিন আসবে। এই ভ্যাকসিন দিয়ে দ্বিতীয় ডোজের অপেক্ষা থাকা প্রায় ১৫ লাখ মানুষের দ্বিতীয় ডোজ নিশ্চিত করা যাবে।

তিনি বলেন, আমাদের কাছে এখন ৪৫ লাখ ডোজ করোনা ভ্যাকসিন মজুদ আছে। কোভ্যাক্সের মাধ্যমেও আমরা অনেক ভ্যাকসিন পাবে। আগামী আগস্ট মাসে আসছে ফাইজারের ৬০ ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২৯ লাখ ডোজ করোনা ভ্যাকসিন।

বিজ্ঞাপন

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও বলেন, বিধিনিষেধ শিথিল করায় ঈদের এই সময়ে করোনার সংক্রমণ বাড়বে। ঈদের আনন্দ যেন দুঃখে পরিণত না হয় তাই সকলকে সচেতন হয়ে মাস্ক পরে স্বাস্থ্যবিধি মানতে হবে।

তিনি হুশিয়ার করে বলেন, সংক্রমণ কমাতে না পারলে স্বাস্থ্য ব্যবস্থার ওপর চাপ পড়বে। তিনি ওয়ার্ড পর্যায়ে করোনার রোগীর খোঁজ খবর রাখতে জনপ্রতিনিধিদের পরামর্শ দেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ভবিষ্যতে দেশের প্রান্তিক মানুষদের নিবন্ধন সমস্যা কমাতে জাতীয় ভোটার আইডি দিয়েই করোনার ভ্যাকসিন নেওয়ার কথাও ভাবছে সরকার।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, দেশে সরকারি ভাবে তিন কোটি ডোজ ভ্যাকসিন কুলচেইন মেনে স্টোর করার স্বক্ষমতা আছে। বেসরকারিভাবে আরো ১০-১৫ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন রাখার ব্যবস্থা রয়েছে।

তবে বছরব্যাপি দেশে ইপিআই’তে শিশুদের ভ্যাকসিন দান কাজ সচল রাখতে শিশুদের ব্যবহুত ভ্যাকসিন স্টোর করতে হয়। এই অবস্থায় নতুন ফ্রিজার কেনার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞাপন