চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

ভারতে চীনা পণ্য বয়কটের ডাক

লাদাখ গালওয়ান উপত্যকায় সংঘাতে ২০ ভারতীয় সেনা নিহতের পর দেশব্যাপী চীনা দ্রব্য বর্জনের ডাক দিয়েছে ইন্ডিয়ান ট্রেডার অ্যাসোসিয়েশন। ভারতীয় ব্যবসায়ীদের ওই সংগঠন দেশটির তারকাদের কাছে চীনা পণ্য বর্জনের আবেদন জানিয়েছে।

‘ভারতীয় সম্মান, আমাদের অভিমান’- ব্যানারে তারা প্রচারও চালাচ্ছে। দেশের বিনোদন ও ক্রীড়া জগতের অমিতাভ বচ্চন, এমএস ধোনি, শচীন টেন্ডুলিকার এবং অক্ষয় কুমারকে চীনা পণ্য বর্জনের আবেদন জানিয়েছেন। চীনা পণ্যের প্রচারে এগিয়ে না আসতে আহ্বান জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

জানা যায়, এই সংগঠনে প্রায় ৭ কোটি ব্যবসায়ী আর ৪০ হাজার ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান রয়েছে। তারা একটা তালিকা তৈরি করেছে।

বিজ্ঞাপন

সংবাধ মাধ্যম এএনআই এই সংগঠনের একটা মন্তব্য উদ্ধৃত করে জানিয়েছে, এখন গোটা দেশ চীন সেনার আক্রমণের প্রতিবাদে গর্জে উঠেছে সারাদেশ। তাই চীনা আগ্রাসন ও তাদের সামরিক বাহিনীর বার্তা দিতে সবারই এগিয়ে আসা উচিত। তাই এই উদ্যোগে সামিল হতে আহ্বান জানিয়েছে সংবাদ সংস্থা এএনআইয়ের ওই প্রতিবেদনে।

এদিকে, ভারত সঞ্চার নিগম লিমিটেড বা বিএসএনএল-এর ৪ জি পরিষেবার উন্নতিতে কোনও চীনা সরঞ্জাম ব্যবহার করা যাবে না, এমনই নির্দেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় টেলিকম মন্ত্রণালয়।

একটি সরকারি সূত্রের বরাত দিয়ে এনডিটিভি জানিয়েছে, সীমান্তে ভারত ও চীনের মধ্যে যে উত্তেজনা তৈরি হয়েছে তারই প্রতিক্রিয়ায় এই সিদ্ধান্ত। তাই বিএসএনএল-এর তরফে ৪জি পরিষেবার উন্নতিতে প্রয়োজনীয় সরঞ্জামের জন্যে নতুন করে টেন্ডার ডাকার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে শুধু সরকারি টেলিকম সংস্থাই নয়, বেসরকারি সংস্থাগুলোকেও চীনা সরঞ্জাম বর্জনের ব্যাপারে অনুরোধ করার বিষয়টিও ভেবে দেখছে কেন্দ্রীয় সরকার।

জানা গেছে, ভারতী এয়ারটেল এবং ভোডাফোন আইডিয়ার মতো টেলিকম সংস্থাগুলি তাদের বর্তমান নেটওয়ার্কগুলিতে হুয়াইয়ের সঙ্গে কাজ করে, অন্যদিকে জেডটিই কাজ করে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা বিএসএনএল-এর সঙ্গে।