চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বিসিবি সভার এজেন্ডায় নারী ক্রিকেটের বাজেট

মঙ্গলবার বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হবে কার্যনির্বাহী কমিটির সভা। যেখানে অন্য অনেক বিষয়ের সঙ্গে গুরুত্ব পাবে নারী ক্রিকেটের বাজেট।

সালমা-রুমানাদের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরানো নিয়েও হবে আলোচনা। দেশের মাটিতে মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ আয়োজন প্রসঙ্গ গুরুত্ব পাবে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

টিম টাইগ্রেসের জন্য বিদেশি কোচ নিয়োগের ফলপ্রস্যু অগ্রগতি এখনো হয়নি। তারপরও আলোচনার টেবিলে ঠাঁই পাবে বিষয়টি। 

বিসিবি পরিচালক ও উইমেন্স উইং চেয়ারম্যান শফিউল আলম চৌধুরী এসব বিষয়ে বললেন, ‘হ্যাঁ, আমাদের ইস্যু আছে (বিসিবি সভায়)। বাজেট, আমাদের মেয়েদেরকে নিয়ে কিছু পরিকল্পনা আছে, সেগুলো আলোচনা হবে। টেস্ট ক্রিকেটের কোনো ইস্যু নেই। বাজেট এবং সামনের খেলাধুলা নিয়ে আলোচনা হবে।’

‘কোচের বিষয়ে আমরা যা পেয়েছি তা সন্তোষজনক নয়। আমাদের মনমতো কোনো আবেদন পাইনি। এখন সময় নিতে হবে। আমরা নতুন করে আবার চেষ্টা করবো। মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপের ভেন্যু নিয়ে আলোচনা হবে।’

বিজ্ঞাপন

মেয়েদের কেন্দ্রীয় চুক্তির বিষয়টিও উঠে আসবে। জানা গেছে নতুন চুক্তিতে খেলোয়াড় সংখ্যা বাড়ছে না। মেয়েদের বেতন ও ম্যাচ ফি বাড়ানোর যে প্রস্তাব করা হয়েছিল সে বিষয়টি চূড়ান্ত হতে পারে বিসিবির নতুন কমিটি দায়িত্বে বসার পরের সভায়। বিসিবির বর্তমান পরিচালনা পর্ষদের চার বছরের মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামী অক্টোবরে।

করোনা বিরতি কাটিয়ে এপ্রিলে ঘরের মাঠে সাউথ আফ্রিকা ইমার্জিং দলের বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে ক্রিকেটে ফিরেছিলেন সালমা-রুমানারা। এবার প্রোটিয়া জাতীয় দলকে আতিথেয়তা দিতে চায় বিসিবি। জুলাইয়ে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলার প্রস্তাব দেয়া হয়েছে দেশটির ক্রিকেট বোর্ডকে।

করোনার দ্বিতীয় ওয়েভ হানা দেয়ার পর মেয়েদের ক্যাম্প নতুন করে আর শুরু হয়নি। মেয়েদের স্থানীয় কোচদের অনেকেই ছেলেদের ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ নিয়ে ব্যস্ত। জাতীয় নারী ক্রিকেট দলের সহকারী কোচ ফয়সাল হোসেন ডিকেন্স কাজ করছেন শিরোপাপ্রত্যাশী ও ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন আবাহনী লিমিটেডের সঙ্গে।

মেয়েদের ফুটবল লিগ, ছেলেদের ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ ক্রিকেট মাঠে গড়ালেও মেয়েদের ক্রিকেট লিগ শুরুর ব্যাপারে আশাবাদী হওয়ার মতো খবর নেই। মেয়েদের ফের ক্যাস্পে ফেরানোর কথা শোনা গেলেও চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি বিসিবি। দুই-তিনজন ছাড়া বাকি ক্রিকেটাররা যার যার গ্রামের বাড়িতে অবস্থান করছেন।

মঙ্গলবারের গুরুত্বপূর্ণ বিসিবি সভায় পুরুষ ক্রিকেটারদের কেন্দ্রীয় চুক্তি, নির্বাচকদের চুক্তি নবায়ন, এজিএম, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টি-টুয়েন্টি সিরিজে ছুটি চাওয়া মুশফিকুর রহিম ইস্যু, সম্প্রতি ঢাকা লিগের মাঠের বিভিন্ন বিষয় ছাড়াও আরও কিছু গুরুত্বপূর্ণ ইস্যুতে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

বিজ্ঞাপন