চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বর্তমান সময়ে ‘পাগলামী’র মতো ছবি হাস্যকর!

বাপ্পীর ‘পাগলামী’র জন্য ক্ষুব্ধ হল মালিকরা...

চিত্রনায়ক বাপ্পী চৌধুরী অভিনীত ‘পাগলামী’ ছবি মুক্তি পেয়েছে শুক্রবার (২০ সেপ্টেম্বর)। দেশের ৩৩টি প্রেক্ষাগৃহে এ ছবিটি মুক্তি পেলেও ‘গ্রহণ করেনি দর্শক’।

একাধিক প্রেক্ষাগৃহের কর্মকর্তা ও কর্মচারী সোমবার বিকেলে চ্যানেল আই অনলাইনকে জানান, দর্শক দেখছে না ‘পাগলামী’। তারা এও বলছেন, ‘বর্তমান সময়ে এমন ছবি একেবারে হাস্যকর!’

বিজ্ঞাপন

রাজধানীর ফার্মগেটের আনন্দ সিনেমা হলে শুক্রবার থেকে চলছে ‘পাগলামী’। হলটির জেনারেল ম্যানেজার মো. শামসুদ্দিন বলেন, দর্শক এ ছবি একেবারে নিজেদের সঙ্গে রিলেট করতে পারছে না। ছবি দেখে খুশী মনে বের হতে পারছে না একটি দর্শকও। আর এ সময়ে এসে পাগলামী’র মতো ছবি নির্মাণ করা একেবারে ফানি, হাস্যকর। নিজেদের চারপাশে কত গল্প রয়েছে, সেগুলো নিয়ে ছবি করলে অন্তত মানুষ ছবি দেখে তৃপ্তি পেত। আজগুবি গল্পের ছবি মানুষ এখন দেখে না। অল্প কিছু মানুষ যা আছে, তাও বাপ্পী আছে বলে আসে! তবে ছবি মোটেও ভালো না।

তিনি বলেন, আনন্দতে হাউজফুল হলে লাখ টাকা সেল হল। সেখানে শুক্রবার চার শো মিলিয়ে ‘পাগলামী’ থেকে আয় হয়েছে মাত্র ১৪ হাজার টাকা! শনিবার ১২ হাজার টাকা, রবিবার আয় হয়েছে মাত্র ১০ হাজার টাকা।

তিনি আরো বলেন, সোমবার দুপুর ও বিকেলের শো মিলিয়ে আয় হয়েছে ৪ হাজার টাকার মতো। সব বাদ দিয়ে শো প্রতি ১০ হাজার থাকলে, লাভের মুখ দেখা যায়। সেখানে চার শো মিলিয়ে আয় হচ্ছে ১০ হাজার! তাহলে ছবি কতটা খারাপ যাচ্ছে, সেটা বোধহয় বলার অপেক্ষা রাখে না। একেবারেই লস।

টিকাটুলি’র অভিসার সিনেমা হলেও চলছে ‘পাগলামী’। সেখানেও ‘ভালো চলছে না’ বলে চ্যানেল আই অনলাইনকে জানিয়েছেন ম্যানেজার খায়রুল কবির।

তার ভাষ্য, ‘পাগলামী’ দেখছে না দর্শক। নায়ক বাপ্পী কিছুটা পরিচিত হলেও নায়িকাকে কেউ চেনে না। তিনি নাকি কলকাতার নায়িকা! আর এ ছবির গল্প খাপছাড়া, খুবই আজগুবি। সেকেলে মনে হয়েছে। নতুন ভালো মানের ছবি নেই বিধায় এ ছবি চালাচ্ছি। ভালো ছবি পেলে যে কোনো সময় হল থেকে নামিয়ে দেব ‘পাগলামী’।

মিরপুর টেকনিক্যালে এশিয়া সিনেমা হল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলাপ করে জানা গেল, তাদের কণ্ঠেও সেই হতাশার সুর। মুঠোফোনে এশিয়ার হিসাবরক্ষক আনিস মিয়া বলেন, শুক্রবার একটা শোতে কিছু দর্শক হয়েছিল। এরপর থেকে একেবারে ফাঁকা মাঠ! দু-চারজন যারাই দেখছেন এতে করে কি লাভের পয়সা আসে? বরং লোকসান হচ্ছে। শুক্রবার থেকে পুরাতন ছবি চালাবো, তবুও এসব মানহীন, আগামাথা ছাড়া ছবি চালাবো না।

এদিকে চট্টগ্রামের আলমাস সিনেমা হলেও আলাপ করে জানা যায়, সেখানে ‘পাগলামী’ দেখতে দর্শক আসছে না। এছাড়া ঢাকার পার্শ্ববর্তী পুনম, রাজমনি, চিত্রামহল, বিজিপি হলগুলোর বুকিং এজেন্টদের সঙ্গে আলাপ করলে তারাও জানান, ‘পাগলামী’ কয়েক বছর আগের ছবি। ব্যবসা ভালো যাচ্ছে না। ছবিটি প্রেক্ষাগৃহে প্রদর্শন করে তারা নিজেরাই ক্ষুব্ধ!

‘পাগলামী’ ছবিতে বাপ্পী চৌধুরীর নায়িকা কলকাতার শ্রাবণী রায়। জানা যায়, তরুণ-তরুণীদের কিছু পাগলামীর গল্প উঠে এসেছে ছবির গল্পে। গল্পে বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া একদল ছেলেমেয়ে শিক্ষাসফরে যায়। সেখানে ঘটে নানা ঘটনা। এ ছবি নির্মাণ করেছেন কমল সরকার। ছবিটির খবর জানতে তার সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি তেমন কিছুই জানেনা না বলে জানান।

তার ভাষ্য, প্রযোজক তার সুবিধামত মুক্তি দিয়েছেন। ছবি কেমন যাচ্ছে ওই খোঁজ আমার জানা নেই।

Bellow Post-Green View