চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

দেশে ফিরেছেন সাকিব

আইসিসির নিষেধাজ্ঞা উঠে গেছে। এখন মাঠে ফেরার পালা। বিসিবির ঘরোয়া টি-টুয়েন্টি টুর্নামেন্ট বঙ্গবন্ধু কাপে খেলতে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে কাতার এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে যুক্তরাষ্ট্র থেকে দেশে ফিরেছেন সাকিব আল হাসান।

টাইগার অলরাউন্ডারকে বিমানবন্দরে স্বাগত জানিয়েছেন ফুলের তোড়া আর ব্যানার সঙ্গী করে আসা একদল ভক্ত। ছিলেন সংবাদকর্মীরা। আইসিসির দুর্নীতিবিরোধী নীতিমালার আইন লঙ্ঘনের অপরাধে একবছর সবধরনের ক্রিকেটের বাইরে থাকতে হয়েছে সাকিবকে।

বিজ্ঞাপন

সময়টা স্ত্রী উম্মে আহমেদ শিশির ও দুই সন্তানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রে ছিলেন সাকিব। নিষেধাজ্ঞার বেশিরভাগ সময়ই অবশ্য তিনি সেখানে পরিবারের সঙ্গে কাটিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

ফিরেই বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার মন দেবেন খেলায়। নভেম্বরে শুরু হতে যাচ্ছে বিসিবির টি-টুয়েন্টি আসর। একবছর অপেক্ষার পর ক্রিকেটে ফিরে টাইগার তারকা পাবেন ছোট ফরম্যাটের ক্রিকেটে ৫ হাজার রানের মাইলফলক স্পর্শের সুযোগ।

বাংলাদেশের প্রথম ব্যাটসম্যান হিসেবে টি-টুয়েন্টিতে পাঁচ হাজারি ক্লাবে প্রবেশ করতে সাকিবের দরকার মাত্র ৩০ রান। ৩০৮ ম্যাচে তিনি করেছেন ৪,৯৭০ রান। তিনি এই রান করেছেন ঘরোয়া ক্রিকেট ও বিপিএল, আইপিএল, বিগ ব্যাশ, সিপিএল, পিএসএলের মতো ফ্র্যাঞ্চাইজি আসরে খেলে।

আনুষ্ঠানিকভাবে ক্রিকেটে ফেরার অপেক্ষায় থাকা সাকিব আন্তর্জাতিক ম্যাচে নামার আগেই একটি সুসংবাদও পেয়েছেন। বাঁহাতি তারকাকে ওয়ানডেতে সেরা অলরাউন্ডারের সিংহাসন ফিরিয়ে দিয়েছে আইসিসি।

আইসিসির সবশেষ প্রকাশিত ওডিআই অলরাউন্ডার র‍্যাঙ্কিংয়ে দ্বিতীয়জন থেকে বেশ বড় ব্যবধানেই এগিয়ে আছেন সাকিব। তার রেটিং ৩৭৩। নিষিদ্ধ করার পর আইসিসি তার নাম তিন ফরম্যাটের সেরা অলরাউন্ডারের তালিকা থেকে সরিয়ে নেয়।