চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কাফরুলে ফ্ল্যাট থেকে স্বামী–স্ত্রী–ছেলের লাশ উদ্ধার

রাজধানীর মিরপুরে কাফরুল থানার একটি ফ্ল্যাট থেকে একই পরিবারের তিনজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে এখনও পরিষ্কার নয় পুলিশ। তবে তারা ধারণা করছেন সন্তান  ও স্ত্রীকে বিষ খাওয়ানোর পর বাড়ির কর্তা গলায় ফাঁস দিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে মিরপুর ১৩ নম্বর সেকশনের বি ব্লকের একটি বাড়ির ফ্ল্যাট থেকে এই লাশ উদ্ধার করা হয়।

বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে কাফরুল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সেলিমুজ্জামান চ্যানেল আই অনলাইনকে বলেন, নিহত ব্যক্তির নাম বায়েজিদ ও নারীর নাম অঞ্জনা। ছেলেটির নাম ফারহান।

তিনি বলেন, ওই নারী ও ছেলেটির লাশ বিছানার ওপরে পাওয়া গেছে। বায়েজিদের লাশ ফ্যানের সঙ্গে ঝুলানো অবস্থায় পাওয়া গেছে।

সেলিমুজ্জামান বলেন, আমরা ঘটনাস্থলে বসে এখন সুরতহাল রিপোর্ট করছি। সিআইডি ক্রাইমকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা আলামত সংগ্রহ করতে আসবেন।

বিজ্ঞাপন

মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আসলে এখনো আমরা এ বিষয়ে পরিষ্কার নই। আগে সিআইডি আসুক। তারা আলামত সংগ্রহের পর বলা যাবে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ।

ডিএমপির মিরপুর বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মোস্তাক আহমেদ  বলেন, প্রাথমিকভাবে আমরা ধারণা করছি- স্ত্রী ও সন্তানকে বিষ খাইয়ে হত্যার পর বায়েজিদ নিজে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

বায়েজিদ ব্যবসা সংক্রান্তে ব্যাংক থেকে ঋণ করেছিলেন, এ বিষয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ কাফরুল থানায় একটি মামলাও করেন।

মোস্তাক আহমেদ বলেন, বায়েজিদ ঋণের কারণে এ ঘটনা ঘটিয়েছেন কি না-পুলিশ তা তদন্ত করে দেখছে।

জানা যায়, এই ফ্ল্যাটে মো. বায়েজিদ নামের এক ব্যক্তি তার স্ত্রী অঞ্জনা ও তাদের উচ্চ মাধ্যমিক পড়ুয়া ছেলে নিয়ে থাকতেন।

শেয়ার করুন: