চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

কল্যাণ আর আনন্দের বার্তা নিয়ে চ্যানেল আই পৌঁছে যাক বিশ্বময়: তথ্যমন্ত্রী

চ্যানেল আইয়ের ২১ বছরে পদার্পণ উপলক্ষে দেয়া এক বাণীতে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, কল্যাণ আর আনন্দের বার্তা নিয়ে চ্যানেল আই পৌঁছে যাক দেশের সর্বত্র এবং বিশ্বময়।

তথ্যমন্ত্রী তার বাণীতে আরো বলেন, ‘চ্যানেল আই তার পথচলার ২০ বছর পূর্ণ করছে জেনে আমি আনন্দিত। ২১ বছরে পদার্পণের এ আনন্দঘন মুহূর্তে চ্যানেল আই পরিবারের সবাইকে আমার শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন।

বিজ্ঞাপন

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের ‘সোনার বাংলা’ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাঙ্ক্ষিত ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ গড়ার প্রত্যয়ে উদ্দীপ্ত দেশে গণমাধ্যম আজ উন্নয়নের সহযাত্রী। দেশ মাতৃকার জন্য গণমাধ্যমের এ ভূমিকা থাকুক অব্যাহত।’

বিজ্ঞাপন

আজকের দিনে গণমাধ্যমের ভূমিকা প্রতিযোগিতাপূর্ণ ও তাৎপর্যবহ উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘এই প্রতিযোগিতা জনগণের কাছে বস্তুনিষ্ঠ তথ্য তাৎক্ষিণভাবে পৌঁছে দেয়ার, সুস্থ বিনোদনের চাহিদা পূরণের। একইসাথে রয়েছে জনগণকে কল্যাণের পথে উদ্বুদ্ধ করা এবং সচেতন করার ক্ষেত্রে গণমাধ্যমের সুমহান দায়িত্ব। এই দায়বদ্ধতার ভেতর থেকে সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে সংবাদ ও অনুষ্ঠান প্রচারে চ্যানেল আইয়ের উৎকর্ষের স্বাক্ষর অক্ষুণ্ণ থাকুক।

১৯৯৯ সালের ১ অক্টোবর যাত্রা শুরু করে চ্যানেল আই। যাত্রার ঠিক দুই বছর পর একই দিন চালু হয় চ্যানেল আই সংবাদ। অগ্রযাত্রার ধারাবাহিকতায় ২০১৫ সালের ২০ এপ্রিল যাত্রা শুরু করে চ্যানেল আই অনলাইন।

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর দিন ১ অক্টোবর দিনভর নানা আয়োজন রেখেছে চ্যানেল আই। যেখানে সমাজের সব অঙ্গনের বরেণ্যজনরা অংশ নেবেন।

Bellow Post-Green View