চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘এবার একটু ট্রেন্ডি গল্প বলার চেষ্টা করেছি’

‘নাটকের মানের চেয়ে ভিউ গুরুত্বপূর্ণ’র এই সময়ে যারা এখনও গল্পকেই প্রধান মনে করেন, তরুণ নির্মাতাদের মধ্যে এই সংখ্যা হাতে গোণা। এমন হাতে গোণাদের একজন ‘লিফলেট’খ্যাত নির্মাতা সেরনিয়াবাত শাওন।

নাটকের গল্পে তিনি তুলে ধরেন সমকালের নানা শ্রেণিপেশার মানুষের জীবনঘনিষ্ঠ গল্প। রোদে পোড়া-বৃষ্টিতে ভেজা শহরের গল্প। কখনও তার গল্পের নায়ক হিসেবে স্থান করে নেন বাসে-বাসে ক্যানভাস করে বেড়ানো লোকটি। নতুন টাকা বিক্রি করা মতিন গুরুত্ব পান তার নাটকে। কখনও বা কান পরিষ্কার করে সংসার চালানো আলতাফ হয়ে উঠেন তার নাটকের গল্পের প্রধান চরিত্র। কিংবা অর্থের বিনিময়ে রান্না করে মানুষকে খাওয়ানো মল্লিকার মতো খেটে খাওয়া মানুষটিও।

বিজ্ঞাপন

শহরের নিম্নবিত্ত মানুষদের নিয়ে নিয়মিত গল্প বললেও এবার ‘ট্রেন্ডি গল্প’ নিয়ে হাজির সেরনিয়াবাত শাওন। জানালেন, ওয়েব সিরিজ ‘সিটি অব এরর’ এর পর ‘অতঃপর’ নামে একটি নাটকের শুটিং শেষ করেছেন, যা থিমেটিক ইউটিউবে দেখতে পারবেন দর্শক।

বিজ্ঞাপন

‘এবার একটু ট্রেন্ডি গল্প বলার চেষ্টা করেছি। এর আগে আমি এরকম কাজ করিনি,’ বলছিলেন সেরনিয়াবাত।

কী রকম ট্রেন্ডি গল্প এটি?

‘অতঃপর’-এর একটি দৃশ্যে তানজিন তিশা ও জোভান

নির্মাতা বলেন, এই সময়ের দুজন তরুণ-তরুণীর স্ট্রাগলের গল্প বলেছি এবার। একজন তরুণী উদ্যোক্তা, যিনি শাড়ি তৈরী করে অনলাইনে বিক্রি করেন। অন্যদিকে একজন সারভাইবাল রাইডারের স্ট্রাগল, যিনি তার পণ্যগুলো বিভিন্ন ক্লায়েন্টদের কাছে পৌঁছে দেন।

দুই তরুণ-তরুণীর চরিত্রে অভিনয় করেছেন তানজিন তিশা ও জোভান। শুটিং হয়েছে ১৫-১৬ সেপ্টেম্বর। চলতি মাসেই থিমেটিক ইউটিউবে মুক্তি পাওয়ার কথা।