চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সত্য ঘটনায় তানিম-কৃষ্ণেন্দুর ‘মানি হানি’

আসছে ঈদে হইচইয়ের প্লাটফর্মে দেখা যাবে তানিম নূর ও কৃষ্ণেন্দু চট্টোপাধ্যায়ের ‘মানি হানি’…

পুরো বিশ্বে এখন ওয়েব কন্টেন্টের জোয়ার বইছে। দর্শকও জুঁকছে ওয়েবের দিকেই। খুব কম সময়ের মধ্যে বাংলাদেশেও ব্যাপক সাড়া ফেলে দিয়েছে ওয়েব কন্টেন্টগুলো। আসছে ঈদকে টার্গেট করে দর্শকের জন্য তৈরী হচ্ছে বাস্তবধর্মী কিছু কন্টেন্ট, আর এরমধ্যে তুমুল আগ্রহ তৈরী করেছে বাংলাদেশে ঘটে যাওয়া একটি দুর্ধর্ষ ডাকাতির কাহিনী নিয়ে নির্মিতব্য ‘মানি হানি’!

তানিম নূর এবং কৃষ্ণেন্দু চট্টোপাধ্যায়-এর যৌথ পরিচালনায় ঘটনাবহুল একটি ওয়েব সিরিজ ‘মানি হানি’। এক শহুরে চরিত্রকে ঘিরে ঘটে চলা বিচিত্র সব ঘটনা উঠে আসবে এখঅনে। ঢাকায় মাত্র পাঁচ বছর আগেই ঘটে যাওয়া এক সত্য ঘটনা অবলম্বনে নির্মিত হয়েছে বলে জানিয়েছেন ছবির দুই নির্মাতা।

বিজ্ঞাপন

অরিজিনাল এই সিরজটি আসছে ওয়েব প্লাটফর্ম হইচই থেকে। সম্প্রতি অনলাইনে ‘মানি হানি’র পোস্টার প্রকাশের সাথে সাথেই দর্শকদের ব্যাপক আগ্রহ দেখা যাচ্ছে। অনেকেই এই ওয়েব সিরিজটির পোস্টার শেয়ার করেছেন।

‘মানি হানি’ নিয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত ছবির দুই নির্মাতাই। এরমধ্যে চ্যানেল আই অনলাইনের সাথে ‘মানি হানি’ নিয়ে কথা বলেন নির্মাতা কৃষ্ণেন্দু। তিনি বলেন, ‘মানি হানি’র গল্পটা সত্যি ঘটনা অবলম্বনে হলেও এটাকে ওয়েব কন্টেন্ট হিসেবে তুলে ধরার আইডিয়াটা তানিম নূর ও লিওনের। তারাই প্রথম এই গল্প নিয়ে কাজ করার কথা বলেন। ক্রাইম থ্রিলার জনরা যেহেতু আমাদের পছন্দ, তাই আমি ও তানিম দুজনেই সম্মত হলে কাজটি শুরু হয়।

‘মানি হানি’র ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর হিসেবে আছেন নির্মাতা অমিতাভ রেজা। স্ক্রিপ্ট প্যানেলে কাজ করেছেন চারজন। কৃষ্ণেন্দু ও তানিম ছাড়াও বাকি দুজন হলেন লিওন ও তানভীর আহসান। দুই নির্মাতার এই সিরিজে ডিওপি দুজন। একজন তানভীর আহসান এবং অন্যজন ইশতিয়াক পাবলু।

কৃষ্ণেন্দু জানান, প্রায় চার মাস ধরে এই প্রজেক্টের কাজ করছেন তারা, বর্তমানে পোস্ট প্রোডাকশনের কাজ চলছে। ঢাকার বিভিন্ন রিয়েল লোকেশন ছাড়াও ‘মানি হানি’র শুটিং হয়েছে মানিকগঞ্জ, কুষ্টিয়া, মাওয়া ও গাজীপুর।

‘মানি হানি’র গল্প গড়ে উঠেছে ৩২ বছর বয়েসি ডিভোর্সি ও পেশায় শেয়ার ব্যবসায়ী শাহরিয়ার কবিরকে ঘিরে। জীবন তার জুয়া, পার্টি, নারী আর অ্যালকোহলে পূর্ণ। বাকপটুতায় যে কাউকেই নিজের প্রেমের ফাঁদে ফেলতে সক্ষম শাহরিয়ার। রঙিন জীবনের নানা উপকরণ আর শেয়ার বাজারে ব্যবসা থেকে আসা মোটা টাকা আয়, সব মিলিয়েই বেশ জৌলুসেই কাটছিলো তার জীবন। হুট করেই একদিন শেয়ার বাজারে নেমে আসে বড় ধ্স। শেয়ার বাজারে ধসের সাথে সাথে তার জীবনেও নেমে আসে বিপর্যয়। এমন এক অবস্থা থেকেই যাত্রা শুরু এই গল্পটির!

‘মানি হানি’র পোস্টার…

এ ওয়েব সিরিজ নিয়ে ‘হইচই’ বাংলাদেশের বিজনেস লিড সাকিব আর খান বলেন, যেহেতু ঢাকায় ঘটে যাওয়া একটি ঘটনাকে কেন্দ্র করে ‘হইচই’ এই অরিজিনাল সিরিজটি দর্শকদের সামনে নিয়ে আসতে পেরেছে, স্বাভাবিক ভাবেই এ নিয়ে আমাদের মাঝে প্রবল উত্তেজনা কাজ করছে। এটি অবশ্যই স্ট্রিমিং প্লাটফর্ম গুলোতে বাংলা কন্টেন্ট এর জন্যে এক নতুন যুগের সূচনা করবে। ‘মানি হানি’র দুর্দান্ত গল্প আর অনন্য উপস্থাপনার জন্যে দর্শকরা দারুণ ভাবে উপভোগ করতে পারবেন বলে আমরা আশাবাদী।

সিরিজটিতে মূখ্য চরিত্রগুলোয় অভিনয় করেছেন শ্যামল মাওলা, মোস্তাফিজুর নূর ইমরান, লুৎফর রহমান জর্জ, সুমন আনোয়ার, নিশাত প্রিয়ম ও নাজিবা বাশার প্রমুখ। আসছে ঈদ-উল-ফিতরের পরপরই ‘হইচই’-এ ওয়েব সিরিজটির স্ট্রিমিং শুরু হবে।

Bellow Post-Green View