চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

অভিনয়ে ‘নতুন মুখ চাই’ বিজ্ঞাপন দিয়ে পর্নোসাইট, অভিনেত্রী গ্রেপ্তার

ভারতের উঠতি মডেল ও অভিনেত্রীদের দিয়ে অশ্লীল ভিডিও শ্যুট করে পর্ন ওয়েবসাইট ব্যবসা চালানোর অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছেন একতা কাপুর প্রযোজিত এএলটি বালাজি ওয়েব সিরিজ ‘গান্দি বাত’ এর অভিনেত্রী গহনা বশিষ্ঠ ওরফে বন্দনা তিওয়ারি।

মুম্বাই পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গহনা বশিষ্ঠ যে পর্নসাইটটি চালাচ্ছিলেন, সেখানে মোট ৮৭টি অশ্লীল ভিডিও আপলোড করা হয়েছে। যে গ্রাহকরা ওয়েবসাইটটি সাবস্ক্রাইব করতেন তাঁদের ২ হাজার টাকা করে দিতে হত। অবশেষে রবিবার (৭ ফেব্রুয়ারি) মুম্বাই ক্রাইম ব্রাঞ্চ গ্রেফতার করেন গহনা বশিষ্ঠকে।

বিজ্ঞাপন

এছাড়াও পুলিশ সূত্রে আরও জানা গিয়েছে, তিন জনের কাছ থেকে অভিযোগ পেয়ে এই পর্নোগ্রাফি চক্রের খোঁজ চালাচ্ছিল তাঁরা। জোর করে পর্ন ছবিতে অভিনয় করতে বাধ্য করা হয়েছে, পুলিশের কাছে এমন অভিযোগ এসেছিল। এরপর শনিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) মালাডের গ্রিন পার্ক বাংলোতে হানা দিয়ে পাঁচ জনকে গ্রেফতার করেন মুম্বাই পুলিশ।

যার ভেতর ছিলেন ইয়াসমিন বেগ খান ওরফে রোওয়া (প্রযোজক ও পরিচালক), প্রতিভা নালাওয়াড়ে (গ্রাফিক ডিজাইনার), মনু গোপাল দাস জোশি (অভিনেতা), ভানুসূর্যায়াম ঠাকুর (সহকারী) এবং মহম্মদ আসিফ (ক্যামেরাম্যান) নামের পাঁচ জন ব্যক্তি। মূলত তাদের গ্রেফতারের পরই জেরায় উঠে আসে গহনার নাম। আজ রবিবার আদালতে পেশ করা হবে গহনাকে।

বিষয়টি নিয়ে ক্রাইম ব্রাঞ্চ প্রপার্টি সেলের সিনিয়র ইনসপেক্টর কেদারি পাওয়ার জানান, বিজ্ঞাপন এবং ওয়েব সিরিজের জন্য ‘নতুন মুখ চাই’ এই বিজ্ঞাপন দিয়ে পর্নোগ্রাফির ফাঁদ পেতেছিল চক্রটি, এমন খবর ছিল পুলিশের হাতে। ছবিতে কাজ পাইয়ে দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে পর্ন ছবিতে অভিনয়ে বাধ্য করত এই গ্যাং। টাকার প্রলোভনেও চুক্তি স্বাক্ষর করিয়ে চাপ দিয়ে অ্যাডাল্ট ছবিতে অভিনয় করতে বাধ্য করা হত। ইতোমধ্যেই পুরো বিষয়টির তদন্ত শুরু করেছেন মুম্বাই ক্রাইম ব্রাঞ্চ।

বিজ্ঞাপন