চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ
Partex Group

বদলে গেছেন শাকিব: বললেন, এই পরিবর্তনটা জরুরি ছিল

Nagod
Bkash July

৯ মাস যুক্তরাষ্ট্রে ছিলেন সুপারস্টার শাকিব খান। মঙ্গলবার সকাল ১১টার ফ্লাইটে নিউইয়র্কে জন এফ. কেনেডি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন তিনি। যুক্তরাষ্ট্রে থাকাকালীন বিভিন্ন উপলব্ধি হয়েছে শাকিবের। তার কথাতেই সে আভাস পাওয়া গেছে তিনি বদলে গেছেন।

সেই সব উপলব্ধির কিছু অংশ শাকিব খান শেয়ার করেছেন তার ফেসবুক ও ইনস্টাগ্রামে। লিখেছেন, তার মধ্যে আমূল পরিবর্তন এসেছেন। এই পরিবর্তনটা তাঁর জন্য জরুরি ছিল।

Sarkas

নতুন অভিজ্ঞতার আলোকে শাকিব বলেন, এই নয়টা মাস ছিল অনেকটা অদৃশ্য শেকলে বাঁধা পড়ে থাকা জীবনের মতো। খেয়াল করেছি, মহান ব্যক্তিরা যখন বড় কিছু করেন, তার আগে এমন বিচ্ছিন্ন থাকেন! তাঁরা যখনই নতুন উপলব্ধি নিয়ে আবার শুরু করেন তখনই তাঁদের সকাল। দূরদেশে এই সময়ে অনেককে পেয়েছি, যারা আমাকে তাদের পরিবারের মানুষ ভেবে আপন করে নিয়েছে, সাপোর্ট দিয়েছে মানসিকভাবে। যাদের আপন মনে করতেন তারা যে আপন নয় এ কথাও শাকিব বুঝেছেন।

তিনি বলেন, অন্যদিকে এও বুঝেছি, যাদের এতদিন আপন মনে করতাম তারা কেউ কেউ সত্যিকার অর্থে আমার আপন ছিল না। এর মাঝেও আমার এগিয়ে চলার এই জীবনে অন্ধের মতো সবচেয়ে বড় সাপোর্ট ছিল, দেশ-বিদেশে ছড়িয়ে থাকা লাখো-কোটি ভক্ত-অনুসারী—যারা সবসময় আমার পাশে থেকেছে, নিঃস্বার্থভাবে ভালোবেসেছে।

ভক্তদের ভালোবাসায় জীবনের সমস্ত চ্যালেঞ্জ উৎরে গেছেন জানিয়ে ঢাকাই সিনেমার এই নবাব বলেন, মন জীবন যখনই আমাকে কোনো চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি করেছে, অথবা নিজেই যখন নিজেকে দিয়েছি ভেঙে গড়ার চ্যালেঞ্জ—উপরওয়ালার রহমতে এবং আমার লাখো – কোটি ভক্তের ভালোবাসায় সবসময় আমি জয়ী হয়েছি। যুক্তরাষ্ট্রে বিগত নয়টা মাসও আমার জীবনে ছিল একটি চ্যালেঞ্জের মতোই, এবং আবারও আমি আপনাদের ভালোবাসায় তা সফলভাবে সম্পন্ন করতে পেরেছি।

যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানকালে যে পরিবর্তন হয়েছে সেটা জরুরি ছিল বলে মনে করেন শাকিব। বলেন, কেন জানি মনে হয় নিজের জীবন-দর্শন, বাস্তবতা ও সবকিছুকে নতুন করে চেনা-জানা এবং বোঝার জন্য আমার এই পরিবর্তন ভীষণ প্রয়োজন ছিল। এ সময়ে খুব কাছ থেকে নিজের জীবনের সবকিছু নতুন করে কল্পনায় এঁকেছি, যেমনটা সিনেমায় করে থাকি। এ সময়টা আমায় পৃথিবী ও নিজের সম্পর্কে নতুন করে ভাবতে সাহায্য করেছে। আজ ফিরছি প্রিয় মাতৃভূমিতে। বেঁচে থাকলে আগামী দিনগুলো আরও সুন্দর হবে ইনশাআল্লাহ।

সব ঠিক থাকলে আগামী বুধবার ১৭ আগস্ট দুপুরে ঢাকায় পা রাখবেন শাকিব। তাঁর ভক্তরা তাঁকে উষ্ণ অভিনন্দন জানাতে বিমানবন্দরে থাকবেন।

BSH
Bellow Post-Green View