চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বেলজিয়ামের স্বপ্ন আজই ভেঙে যেতে পারে: লিটন

সাবেক তারকা ফুটবলার

Nagod
Bkash July

পোল্যান্ডকে ২-০ ব্যবধানে হারিয়ে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় রাউন্ড তথা প্রি-কোয়ার্টারে পা রেখেছে আর্জেন্টিনা। গতকাল অবশ্য প্রায় সবারই অনুমান ছিল আর্জেন্টিনাই জিতবে। সেই অনুমান মাঠে সত্য করতে ভূমিকা রাখেন আর্জেন্টিনা দলের দুই তরুণ অ্যালেক্সিস ম্যাক অ্যালিস্টার এবং জুলিয়ান আলভারেজ। এই দুজন আর্জেন্টিনা-বাগানে সুবাসিত ফুল ফোটান। আর তাই গত রাতে আর্জেন্টিনার সমর্থকদের উল্লাস আর উত্তেজনার শব্দ ভেসে আসে চারপাশ থেকে। আর্জেন্টাইন পত্রিকা ‘ওলে’ লিখেছে আলভারেজের দেওয়া গোলটি ছিল বেশি উত্তেজনাময়।

Reneta June

খেলার দুই অর্ধেই ছিল আর্জেন্টিনার পুরো নিয়ন্ত্রণ। মধ্যমাঠে এনজো ফার্নান্দেজ এবং ডি পল, ফরোয়ার্ডে মেসি, অ্যালিস্টার, আলভারেজ-এর চমৎকার কম্বিনেশনের কাছে কোণঠাসা হয়ে পড়ে পোল্যান্ড। ‘গ্রুপ’ সি থেকে আর্জেন্টিনার সাথে দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠে এসেছে পোল্যান্ড-ই। কেননা গ্রুপের অপর ম্যাচে মেক্সিকো ২-১ গোলে সৌদি আরবকে হারাতে সক্ষম হলেও গোল ব্যবধানে পোল্যান্ডের কপাল খুলে যায়।

দ্বিতীয় রাউন্ডে আর্জেন্টিনার সাথে লড়াই হবে গ্রুপ ‘ডি’ থেকে দ্বিতীয় হওয়া অস্ট্রেলিয়ার। অন্যদিকে, পোল্যান্ডকে লড়তে হবে বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ফ্রান্সের সাথে। গতকাল পোল্যান্ডের সাথে আর্জেন্টিনার জয় ও খেলার ধারাকে সাবেক তারকা ফুটবলার মাহমুদুল হক লিটন খুবই ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন।

লিটন বলেন, ‘সৌদি আরবের সাথে আর্জেন্টিনা অপ্রত্যাশিত পরাজয়ে যে ধাক্কা খেয়েছে সেটাই কিন্তু ওদেরকে আরও এগিয়ে যাওয়ার পথ তৈরি করেছে। গত দুই ম্যাচে সেটি আরও পরিষ্কার হয়েছে। কাল পোল্যান্ডের বিপক্ষে আর্জেন্টিনা অনেক গুছিয়ে খেলে এবং অনেক সাবলীল ছিল। অ্যাটাকিং মুডে প্রতিপক্ষের সীমানায় হানা দিয়েছে। আরও গোল পেতে পারত। সামনের ম্যাচে আর্জেন্টিনা আরও ভালো করবে বলে প্রতিভাত হয়েছে।’

আজ গ্রুপ পর্বের খেলায় অনেক ধরনের চমকের সম্ভাবনা রয়েছে। গ্রুপ ‘এফ’র লড়াইয়ে রাত ১টায় ক্রোয়েশিয়া এবং বেলজিয়াম একে অপরের মুখোমুখি হবে। এই গ্রুপের কানাডা ও মরক্কোও লড়বে একই সময়ে। তবে ক্রোয়েশিয়া এবং বেলজিয়ামের দিকে সবার চোখ। কেননা এক কঠিন সমীকরণের মুখোমুখি বেলজিয়াম। ক্রোয়েশিয়ার কাছে হারলেই গতবারের রানার্সআপ দলটিকে এবারের বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিতে হবে। বেলজিয়াম প্রথম ম্যাচে কানাডাকে হারালেও দ্বিতীয় ম্যাচে মরক্কোর কাছে ২-০ গোলে পরাজিত হয়। এমন প্রেক্ষিতে ক্রোয়েশিয়ার মুখোমুখি তারা।

ক্রোয়েশিয়া প্রথম ম্যাচে মরক্কোর সাথে ড্র করলেও কানাডাকে হারিয়েছে ৪-১ গোলের ব্যবধানে। এই ম্যাচ নিয়ে সাবেক তারকা ফুটবলার মাহমুদুল হক লিটনের সাথে কথা হয়। আশির দশকে ঢাকার মাঠের অন্যতম স্ট্রাইকার। ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাবে খেলেছেন ক্যারিয়ারের বড় সময় ধরে। জাতীয় দলের হয়েও খেলেন অনেক অনেকদিন। লক্ষ্যভেদী শক্তিশালী শটে তিনি ছিলেন অনন্য অনবদ্য। ঐসময়ের ফুটবল দর্শকদের স্মৃতি থেকে লিটনের সেই তীব্র শটের কথা মুছে যায়নি।

সাবেক এই তারকার মতে, ‘আজ ক্রোয়েশিয়া এবং বেলজিয়ামের মধ্যে তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ এক ম্যাচ হবে। বেলজিয়ামের জন্য এই ম্যাচ জীবনমরণ ম্যাচ। কেননা আজ বেলজিয়াম হেরে গেলে বিশ্বকাপ থেকে তাদেরকে নিশ্চিত বিদায় নিয়ে হবে। এমন এক দোলাচলের মধ্যে রয়েছে বেলজিয়াম।’

‘সেই তুলনায় কিছুটা ফুরফুরে মেজাজে আছে ক্রোয়েশিয়া। গত ম্যাচে তারা হেসেখেলে হারিয়েছে কানাডাকে। কিন্তু বেলজিয়াম গত ম্যাচে মরক্কোর কাছে হেরে পথ হারিয়ে ফেলছে বললে ভুল হবে না। ফলে নানান সংকটও তৈরি হয়েছে। সেই সংকট থেকে তাদের বেরিয়ে আসা এখন অনেক বড় এক চ্যালেঞ্জ।’

তিনি আরও বলেন, ‘বেলজিয়াম গতবারের মতো তুমুল শক্তিশালী দল নয়। দলে বেশ বয়সী খেলোয়াড় রয়েছে। দমে ঘাটতি আছে। আবার অনেক প্লেয়ার রেস্ট না নিয়েই খেলছে। লুকাকুর মতো প্লেয়ার আবার ইনজুরি সমস্যায় আক্রান্ত। যে কারণে বেলজিয়াম গতি ও পথ দুই-ই হারিয়ে ফেলেছে। সেই তুলনায় ক্রোয়েশিয়া যথেষ্ট গোছানোয় উদীপ্ত, প্রাণবন্ত এবং সাবলীল এক দল। ফলে পার্থক্য এখানেই। তাই আজ ক্রোয়েশিয়া জয়ের পথে অনেকটাই এগিয়ে থাকবে।’

এই গ্রুপ থেকে মরক্কো দ্বিতীয় রাউন্ডে যাবে বলে সাবেক তারকা লিটন মনে করেন। তার বিশ্লেষণে মরক্কো এই গ্রুপের দুটো শক্তিশালী দলের বিরুদ্ধে নিজেদের সামর্থ্য সেইভাবে প্রমাণ করেছে। ক্রোয়েশিয়ার সাথে তারা হারেনি, আবার বেলজিয়ামকে হারিয়েছে। এরমধ্যে দিয়ে প্রমাণ হয়েছে তারা অনেকদূর যেতে আগ্রহী। কানাডার বিপক্ষে মরক্কো তাই অনেক অনেক এগিয়ে থাকবে।

মাহমুদুল হক লিটনের প্রিয় দল বরাবরই ব্রাজিল। আর এই দলের জিকো তার সারাজীবনের পছন্দ। জিকোকে সবসময় স্মরণে আনেন। প্রিয় দল ব্রাজিলকে তিনি এই বিশ্বকাপের অন্যতম ফেভারিট মনে করেন। তার মতে, সামনে ব্রাজিল এবং স্পেন মুখোমুখি হলে সেটা এই বিশ্বকাপের অন্যতম সেরা এক ম্যাচ। যে ম্যাচের রূপ সৌন্দর্য সবকিছু ছাপিয়ে যাবে। নতুনদের মধ্যে অনেকের খেলাই তার ভালো লাগে।

কিন্তু ফ্রান্সের এমবাপেকে তিনি বেশি পছন্দ করেন। এমবাপের চোখ জুড়ানো গতি এবং ড্রিবলিং তাকে বরাবরই মোহিত করে। ফ্রান্সের অন্যতম এই প্রাণশক্তি সামনের প্রতিটি ম্যাচে জয় ছিনিয়ে নিতে বড় ভূমিকা রাখবে বলে তিনি বিশ্বাস করেন।

কাতার ছাড়া এশিয়ার টিমগুলো ভালো খেলেছে বলে মনে করেন লিটন। কিন্তু ভাগ্যের ফেরে বিদায় নিতে হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘এশিয়ানরা এবারের বিশ্বকাপে নিজেদের সামর্থ্য অনেকবেশি তুলে ধরতে পারলেও নানা সমীকরণে তাদের বিদায়ের পথ সুগম হয়েছে। জাপান, সাউথ কোরিয়া যদি দ্বিতীয় পর্বে উঠতে পারে তাতে এশিয়ার সম্মান আরও বৃদ্ধি পাবে।’

BSH
Bellow Post-Green View