চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

২১ আগস্টের হামলার ক্ষত এখনও বয়ে চলছেন তারা

২০০৪ সালের একুশে আগস্ট আওয়ামী লীগের সমাবেশে বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলার ঘটনায় মাদারীপুরের ৪ জন নিহত হন। সরকারের আর্থিক ও অন্যান্য সহযোগিতায় দুঃখ কিছুটা ঘুঁচলেও দোষিদের সাজা কার্যকর না হওয়ায় ক্ষুব্ধ তারা।

সেদিনকার নিহতদের একজন নাসির সরদার। আওয়ামী লীগই ছিল তার ধ্যান ও জ্ঞান। কোথাও আওয়ামী লীগের মিছিল মিটিং হলে তার উপস্থিত থাকতেনই। ২০০৪ সালের একুশে আগস্ট তেমনি জননেত্রী শেখ হাসিনার সমাবেশে সামনের দিকেই ছিলেন নাসির। আর সেদিনের গ্রেনেড হামলায় নিহত হন তিনি। রেখে যান ৫ মাসের শিশু মুনসহ স্ত্রী ও মা ও এক ভাইকে। মুন এখন ১৬ বছরের কিশোর। তার কাছে বাবা মানেই রক্তাক্ত একটি ছবি।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

আর্থিক সহযোগিতা ও ফ্ল্যাট বাড়ি পেয়ে শেখ হাসিনার প্রতি খুশি নাসিরের পরিবার। তবে হামলায় জড়িতদের রায় কার্যকর না হওয়ায় ক্ষুব্ধ তারা। এলাকাবাসীও চায় দ্রুত রায় কার্যকর করুক সরকার।

বিজ্ঞাপন

ওই ঘটনায় নিহত ও আহতদের পরিবারকে সার্বিক সহযোগিতা দেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন জেলা প্রশাসক।

একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলার রায় দ্রুত কার্যকরের মাধ্যমে নিহতের আত্মা শান্তি পাবে এমনটাই প্রত্যাশা মাদারীপুরবাসীর।