চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সালমান-অজয়-অক্ষয়সহ ৩৮ অভিনেতার বিরুদ্ধে মামলা

২০১৯ সালে ভারতের হায়দরাবাদের এক নৃশংস গণধর্ষণের ঘটনায় পুরো ভারতে তোলপাড় শুরু হয়ে গিয়েছিল। যেই ঘটনায় সাধারণ মানুষের পাশাপাশি তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ করেছিলেন বলিউড ও দক্ষিণের অনেক তারকারা। পাশাপাশি নেট দুনিয়ায় নিজেদের ক্ষোভ এবং দুঃখ প্রকাশ করেছিলেন তারা।

যাদের মধ্যে বেশকিছু তারকা নৃশংসতার শিকার মেয়েটির পরিচয় ফাঁস করেছিলেন। ঘটনার দুই বছর পর সেই সব তারকাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন দিল্লি নিবাসী আইনজীবী গৌরব গুলাটি।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

মামলায় দায়ের করা তারকাদের তালিকায় রয়েছে সালমান খান, অক্ষয় কুমার, রাকুল প্রীত সিং, অজয় দেবগনসহ মোট ৩৮ জন তারকার নাম।

বিজ্ঞাপন

আইনজীবী গৌরব গুলাটির অভিযোগ অনুসারে, ক্ষোভ প্রকাশ করতে গিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় গণধর্ষিতার পরিচয় জানিয়ে দিয়েছিলেন নাম উল্লেখিত তারকাদের প্রত্যেকে। ভারতীয় আইন অনুযায়ী যা অপরাধ।

দুই বছর আগে নভেম্বর মাসে হায়দরাবাদের পশু-চিকিৎসকের গণধর্ষণের ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসে। ২৬ বছরের ওই তরুণীকে ধর্ষণ করে জ্যান্ত পুড়িয়ে খুন করার ঘটনায় স্তম্ভিত হয় ভারত। ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। ঘটনায় অভিযুক্ত চারজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়। দোষীদের উপযুক্ত শাস্তির দাবি ওঠে। যারই প্রতিবাদে মুখর হয়েছিলেন তারকারা।

তবে গৌরব গুলাটি ভাষ্যমতে তারকাদের সামাজিক দায়িত্ববোধ থাকা উচিত ছিল। এভাবে একজন গণধর্ষিতার নাম তাদের প্রকাশ্যে লেখা উচিত হয়নি। ক্ষোভ, সমবেদনা প্রকাশ কিংবা প্রতিবাদ করার অনেক উপায় রয়েছে। তবে এভাবে নির্যাতিতার নাম প্রকাশ্যে লেখা যায় না। মূলত এই দায়িত্বজ্ঞানহীনতার জন্যই অভিযুক্ত তারকাদের গ্রেপ্তারির দাবি করেছেন দিল্লির আইনজীবী।

বিজ্ঞাপন