চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সাকিব বলছেন, সবার মজার সময়ই কাটবে

ক্যারিবীয় দ্বীপের অভিযান শেষে বাংলাদেশ দল এখন যুক্তরাষ্ট্রে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টি-টুয়েন্টি সিরিজের বাকি দুটি ম্যাচ ফ্লোরিডায় খেলবে টাইগাররা। নতুন জায়গা, নতুন পরিবেশ হলেও সাকিব রোমাঞ্চিত। ভিনদেশে অনেক ‘দেশির’ সমর্থন মিলবে বলে সিরিজের বাকি অংশটুকু বেশ উপভোগ্যও হবে ধারণা অধিনায়কের।

রোববার ও সোমবার বাংলাদেশ সময় সকাল ৬টায় লডারহিলের মাঠে গড়াবে সিরিজের বাকি দুটি টি-টুয়েন্টি। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগের সুবাদে যে মাঠ অনেকটা চেনা সাকিবের। প্রথমদিনের অনুশীলন পর্বে এসে যদিও সেই চেনা উইকেটের সঙ্গে খানিকটা ভিন্নতাই খুঁজে পেলেন টাইগার অধিনায়ক।

‘বলা মুশকিল, আমি যখন সিপিএলের ম্যাচ খেলেছি এখানে, তার থেকে এবারের উইকেট বেশ ভিন্ন। তাছাড়া দেখতে একরকম হলেও অনেকসময় একরকম হয় না। অনুশীলনের পরই হয়ত বোঝা যাবে আসলে কেমন উইকেট। আমরা সাইড উইকেটেই অনুশীলন করছি, ম্যাচের উইকেটও এর থেকে খুব আলাদা হবে না।’

বিজ্ঞাপন

উইকেট যেমনই হোক, মাঠের সময়টা বেশ মজারই হবে বলে মনে করছেন সাকিব। সেটি গ্যালারি থেকে দেশি আবহের সমর্থন মেলার কারণেও, ‘সবার জন্যই অনেক রোমাঞ্চকর হওয়া উচিত। যেহেতু এখানে অনেক বাংলাদেশি সমর্থক থাকবে, সবার জন্য একটা মজার সময়ই হবে বলে আমি মনে করি এই দুটি ম্যাচে।’

প্রথম টি-টুয়েন্টিতে বড় সংগ্রহের সম্ভাবনা জাগিয়েও পূর্ণতা মেলেনি। কিছু রান কম করে বসে বাংলাদেশ। পরে বোলিংও হয়নি সেভাবে। আসলে রাসেল-লুইসদের মতো ব্যাটিং দানবদের সামনে বড় সংগ্রহ ছুঁড়ে দিতে না পারলে বেশ কঠিন হয়ে যায় বোলারদের জন্য। সাকিব সেই জায়গাগুলোতেই উন্নতি করতে চান।

‘যেহেতু সুযোগ ছিল আরও বেশকিছু রান করার, কয়েকটি কারণে হয়ত আমরা করতে পারিনি। ওই জায়গাগুলোয় উন্নতি করতে পারলে অবশ্যই আরও বেশকিছু রান করা সম্ভব। উইকেট যদি আগের ম্যাচের মতই আচরণ করে, আগে ব্যাটিং করলে তাহলে বেশ বড় সংগ্রহই গড়া সম্ভব আমাদের।’

বিজ্ঞাপন