চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সাংবাদিক কাজলের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি

নব্বইয়ের গণঅভ্যুত্থানের ছাত্রনেতাদের বিবৃতি

কারাবন্দী সাংবাদিক শফিকুল ইসলাম কাজলের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করেছেন নব্বইয়ের গণঅভ্যুত্থানের সাহসী ছাত্রনেতারা।

বুধবার এক যুক্ত বিবৃতিতে সাবেক ছাত্রনেতারা বলেন, ‘গত ১০ মার্চ অপহরণের ৫৩ দিন পর বেনাপোল সীমান্ত থেকে কাজলকে উদ্ধার করা হয়। পরে তার বিরুদ্ধে পাসপোর্ট ছাড়া বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের অভিযোগে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। কিন্তু তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল আইনে আরও তিনটি মামলা আছে বলে ৫৪ ধারায় যে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে এবং একই সাথে তাকে পিছমোড়া করে হাতকড়া পরানো খুবই উদ্বেগের বিষয় এবং মানবাধিকার পরিপন্থী।’

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

তারা আরও বলেন, শফিকুল ইসলাম কাজল একজন সৎ ও সাহসী সাংবাদিক। ৯০ এর গণঅভূত্থান, শহীদ জননী জাহানারা ইমামের নেতৃত্বে করা গণআদালত-এ তিনি সক্রিয় ভূমিকা পালন করেন। এছাড়া ওয়ান ইলেভেনে সময় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে তিনি বর্তমান প্রধানমন্ত্রীর দূর্লভ সব ছবি ক্যামেরাবন্দি করেন।

বিজ্ঞাপন

বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়, ‘শফিকুল ইসলাম কাজলকে জীবিত উদ্ধারে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর যারা ভূমিকা রেখেছেন তারা অবশ্যই প্রশংসনীয় কাজ। কিন্তু সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের কোনো একটা স্ট্যাটাসকে কেন্দ্র করে আরও নতুন মামলা দিয়ে তার মুক্তি প্রলম্বিত করা হলে স্বাধীনতা বিরোধী শক্তিসমূহই প্রাকারন্তরে লাভবান হবে। সাংবাদিক শফিকুল ইসলাম কাজলকে হয়রানি না করে দ্রুত মুক্তি দিয়ে সরকার ও রাষ্ট্র দায়িত্বশীল আচারণ করবে বলে আমরা প্রত্যাশা করছি।’

শফিকুল ইসলাম কাজল নিখোঁজ হওয়ার পরপরই তাকে উদ্ধার ও মুক্তি চেয়ে দেশের প্রগতিশীল রাজনৈতিক-সাংস্কৃতিক-সাংবাদিকরা সোচ্চার।