চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

সম্ভাব্য দুর্ভিক্ষ মোকাবেলায় চাষাবাদে মনোযোগী হতে প্রধানমন্ত্রী’র আহ্বান

করোনাভাইরাস পরিস্থিতি শেষ হলে বিশ্বব্যাপী মন্দা দেখা দিতে পারে, আসতে পারে দুর্ভিক্ষও। তাই খাদ্য সংকট মোকাবেলায় এখন থেকেই মনোযোগী হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সোমবার সকালে ঢাকা বিভাগের কিশোরগঞ্জ, টাঙ্গাইল, গাজীপুর ও মানিকগঞ্জ জেলা এবং ময়মনসিংহ বিভাগের জেলাসমূহের জেলা প্রশাসনের সঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সের সময় একথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বিজ্ঞাপন

এসময় কারো কোনো জমি যেন অনাবাদি না থাকে সেটা নিশ্চিত করার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ধান শেষ হলে সেই মাঠে অন্য কোনো ফসল ফলান, সবজি চাষ করুন। কোনো জমি যেন অনাবাদি না থাকে।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

তিনি আরও বলেন, ধান কাটার কাজে কেউ যেতে চাইলেও যেতে পারছে না।কারণ যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধ।  আইনশৃঙ্খলাবাহিনীকে বলবো, তাদের যাওয়ার ব্যবস্থা করুন। এবছর আমরা আরো বেশি ধান সংগ্রহ করবো।

আলোচিত পিপিই বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, পিপিই শুধু স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য। এপ্রিল মাসটা দুশ্চিন্তার মাস, এই মাসে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেশি দেখা দিতে পারে, তাই এই মাসটা বেশি সতর্ক থাকতে হবে। করোনা মোকাবেলায় সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা মেনে চলতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যে  ত্রাণ ও স্বাস্থ্যসুরক্ষার কাজ যথাযথ হচ্ছে কিনা খোঁজ নেওয়ার নির্দেশ দেন সচিবদের। তিনি বলেন, এখন তো সচিবালয় বন্ধ। আপনারা তথ্য নেবার পরে আমাকে তথ্য দেবেন। যার প্রয়োজন তাকেই যেন ত্রাণ সহায়তা দেওয়া হয়। এখন অনেক এলাকায় কৃষকের ধান কাটার সমস্যা হওয়ায় ছাত্রলীগকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। যার যার এলাকায় তারা একাজে সহায়তা করছে। এভাবেই সবাইকে পরিস্থিতি মোকাবেলায় এগিয়ে আসতে হবে।