চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

যে পাঁচ মন্ত্র অনুসরণ করেন ‘বাহুবলী’র পরিচালক

ভারতীয় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রির খ্যাতিমান কোনো পরিচালকের নাম যদি বলতেই হয়, সবার আগে সেই তালিকায় নাম আসবে ‘বাহুবলী’ খ্যাত পরিচালক  এস এস রাজামৌলির। আজ রোববার তার জন্মদিন। এদিন ৪৮ বছরে পা দিলেন জনপ্রিয় এ পরিচালক।

প্রায় ২০ বছরের ক্যারিয়ারের প্রায় ১১টি সিনেমা পরিচালনা করেছেন এস এস রাজামৌলি। যার অধিকাংশই বাণিজ্যিকভাবে ব্যাপক হিট হয়েছে। শুধু তাই নয়, তার পরিচালিত চলচ্চিত্রগুলি বিশ্বজুড়ে বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্র উৎসবেও প্রদর্শিত হয়েছে। দর্শকদের কাছেও ব্যাপক প্রসংশিত হয়েছে তা।

তিনি তিনটি জাতীয় পুরস্কার, চারটি ফিল্মফেয়ার পুরস্কার (দক্ষিণ) , পাঁচটি নন্দী পুরস্কার এবং আরও বেশ কয়েকটি মর্যাদাপূর্ণ পুরস্কার অর্জন করেছেন। তবে আজও তার পরিচালিত সিনেমাগুলো হিট হওয়ার মন্ত্রসমূহ  অজানা দর্শকদের কাছে। চলুন এক নজরে জেনে নেওয়া যাক সিনেমা নির্মাণের ক্ষেত্রে এস এস রাজামৌলি কোন ৫টি টিপস ফলো করেন।।

পড়তে হবে প্রচুর
এস এস রাজামৌলি পরিচালিত সিনেমা মানেই ভিন্ন কিছু। মূলত ভারতীয় মহাকাব্য কেন্দ্রিক সিনেমা নিয়ে কাজ করতে বেশি পছন্দ করেন এই পরিচালক। তবে সেটির জন্য তাকে করতে হয় কঠোর পরিশ্রমও। রাজামৌলির মতে জানার কোনো বিকল্প নেই। আর সেটি জন্য প্রচুর পড়তে হবে। যে যত বেশি পড়তে পারবে তার জ্ঞানের ভাণ্ডার ততই সম্মৃদ্ধ হবে।

বিজ্ঞাপন

সঠিক দল নির্বাচন
চলচ্চিত্র নির্মাণ অবশ্যই একটি দলগত প্রক্রিয়া। যেখানে শুধু মাত্র একজনের পরিশ্রমে কিছুই হতে পারে না। শুধু মাত্র ভালো পরিচালক এবং অভিনেতা-অভিনেত্রী দিয়েই ভালো চলচ্চিত্র নির্মাণ সম্ভব নয়। ভালো চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্য ভালো টেকনিশিয়ান থেকে শুরু করে ভালো ক্যামেরা পারসন-সহ একটি দক্ষ টিম দরকার। যা সম্মিলনেই একটি ভালো সিনেমা নির্মাণ সম্ভব।

চিত্রনাট্য ও গল্পের পার্থক্য বোঝা
পরিচালকদের অধিকাংশই সিনেমার গল্প ও চিত্রনাট্যের বিষয়টাকে এক মনে করেন, যেটি একদমই ভূল একটি ধারণা। কারণ গল্পে আপনি যতই বিস্তারিত ভাবে লেখেন না কেন পর্দায় সেটির উপস্থাপন সবার এক না। সেক্ষেত্রে শুধু মাত্র ভালো গল্পের উপর ভিত্তি করেই আপনি বলতে পারবেন না সিনেমাটি ভালো। যদি না পর্দায় সেটি পরিপূর্ণ ভাবে উপস্থাপন না করা হয়ে থাকে।

ব্যবস্যার জন্য চলচ্চিত্র নির্মাণ না করা
চলচ্চিত্র নির্মাণ  অত্যন্ত ব্যক্তিগত একটি প্রক্রিয়া। এটির প্রতি যদি আপনার পরিপূর্ণ ভালোবাসা না থাকে তবে কখনোই এর নির্মাণ ভালো হবে না। অনেকেই শুধুমাত্র ব্যবসায় সফল হওয়ার মনোভাব নিয়েই সিনেমা নির্মাণ করেন। তবে সেই চিন্তা মাথায় না রেখে যদি পরিচালকরা দর্শক কিসে বিনোদন পাবে সেটি মাথায় রাখে তবে আরও বেশি ব্যবসা সফল সিনেমা নির্মাণ করতে পারবেন।

সিনেমার গল্পটাই মূল
যখন একটি চলচ্চিত্র নির্মাণের প্রসঙ্গ আসে তখন তার গল্পটাই মূল। আপনি সিনেমায় যত বড় তারকাকেই কাস্ট করুন না কেন যথাযথ গল্প ছাড়া সবই বৃথা। সিনেমার গল্পের উপর ভিত্তি করেই পারিপার্শিক সব কিছু নির্ধারিত হয়ে থাকে বলে মনে করেন এস এস রাজামৌলি।

বিজ্ঞাপন