চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

মুক্তামনির জন্য প্রধানমন্ত্রীর ভালোবাসা, সিঙ্গাপুরে নেয়ার উদ্যোগ 

বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন শিশু মুক্তামনির উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর জেলারেল হাসপাতালে নেয়ার উদ্যোগ চলছে। মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাতের পর সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালের সাথে যোগাযোগ শুরু করেছেন চিকিৎসকরা।

বার্ন এন্ড প্লাস্টিক সার্জারির সমন্বয়কারী অধ্যাপক সামন্ত লাল সেন এই তথ্য জানিয়ে বলছেন, এক সপ্তাহের মধ্যে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে।

সাতক্ষীরা সদরে কামারবাইশা গ্রামের এই মুক্তমনি বিরল রোগে আক্রান্ত হবার আগ পর্যন্ত বোন হিরামনির সাথেই কাটিয়েছে দুরন্ত শিশুকাল। ১০ বছর বয়সী মুক্তামনির সাথে হরিহর আত্মা ছিল তারই যমজ বোন হিরামনি। যমজ শিশু হিসেবে এই দুই বোন জন্মের পর থেকেই ছিল মানিকজোড়। কিন্তু গত তিন বছরের বেশি সময় বাড়িতে শয্যাশায়ী মুক্তামনি। বাড়ির পাশের মির্জানগর আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ক্লাস ওয়ানের পর আর যাওয়া হয়নি তার ।

মুক্তামনি গত কয়েক বছরে স্কুল, প্রিয় স্বজন থেকেও দুরে। হারিয়েছে তার দারুণ শৈশবও। গত ১১ই জুলাই ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তির সুযোগ পেয়ে নতুন করে স্বপ্ন দেখছে সে। নতুন করে বাঁচার উদ্যোগে সহযোগিতার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞ মুক্তামনি।

বিজ্ঞাপন

মাত্র দেড় বছর বয়সে মুক্তামনির ডান হাতে ছোট্ট টিউমার দেখা দেয়। তারপর গত কয়েক বছরের তা বেড়ে যন্ত্রণাময় জীবন কাটাচ্ছে মুক্তামনি ।

বার্ন এন্ড প্লাস্টিক সার্জারি বিভাগের অখ্যাপক ডাঃ সামন্ত লাল সেন বলেন,  মুক্তামনি বিরল লিমফেটিক ডিজওডারে আক্রান্ত।
উন্নত প্রযুক্তি নির্ভর চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে যোগাযোগ করে রোগীর তথ্য উপাত্ত পাঠানো হয়েছে বলছেন চিকৎসকরা।

বিস্তারিত দেখুন ভিডিও রিপোর্টে: 

বিজ্ঞাপন