চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বোকা-রিভার প্লেট কাণ্ডে জড়িয়েছেন ফিফা প্রেসিডেন্টও

কোপা লিবার্তোদোরেসের ফাইনাল নিয়ে নাটক চরমে পৌঁছে গেছে। বোকা জুনিয়র্স কর্মকর্তারা তাদের বাসে ভয়ঙ্কর হামলার জন্য ইতিমধ্যেই রিভার প্লেটকে টুর্নামেন্ট থেকে নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়েছেন।

এরমধ্যেই আবার বোমা ফাটিয়েছেন রিভার প্লেট প্রেসিডেন্ট। বলছেন, রোববার যখন বোকা জুনিয়র্স তাদের অধিনায়কসহ কয়েকজন খেলোয়াড় আহত বলে খেলতে চায়নি, তখন খেলা চালানোর জন্য বলেছিলেন স্বয়ং ফিফা প্রেসিডেন্ট জিয়ান্নি ইনফান্তিনো। তিনি নিষেধাজ্ঞা হুমকিও দিয়েছিলেন।

বিজ্ঞাপন

রিভার প্রেসিডেন্ট রোদেল্ফো দোনোফ্রিাও’র কথায়, ‘আহত থাকার কারণে কোনো খেলোয়াড়কে ছাড়া যাতে বোকাকে মাঠে নামতে না হয়, সেটা মেনে নিয়েছিলাম। আসলে ম্যাচ রোববার করার জন্য জোর চাপাচাপি করেছিলেন ফিফা প্রেসিডেন্ট নিজেই।’

ইনফান্তিনো অবশ্য আর্জেন্টাইন ‘সুপারক্ল্যাসিকো’ দেখতে বুয়েন্স আয়ার্সেই উপস্থিত ছিলেন। তিনি এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন।

একটি আর্জেন্টাইন পত্রিকাকে ইনফান্তিনো বলেছেন, ‘একটি বিষয় পরিস্কার করতে চাই। খেলা চালিয়ে নেয়ার যে মিথ্যা গুজব ছড়িয়েছে সেটা আসলে ঠিক নয়। আমি খেলা চালিয়ে নেয়া বা নিষেধাজ্ঞার কোনো হুমকি কাউকে দেইনি। কারণ এই ব্যাপারে সিদ্ধান্তটা লাতিন আমেরিকার ফুটবল সংস্থা-কনমেবলের, ফিফার নয়।’

বিজ্ঞাপন

বোকা জুনিয়র্সের বাসে হামলার ঘটনায় এই মুহূর্তে দারুণ চাপে লাতিন আমেরিকার ফুটবল সংস্থা-কনমেবল। এই মহাদেশের চ্যাম্পিয়ন দলেরই ১৮ ডিসেম্বর খেলার কথা বিশ্ব ক্লাব কাপের সেমিফাইনালে।

এবারের বিশ্ব ক্লাব কাপ হবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। আর্জেন্টিনায় যেহেতু ঝামেলা হচ্ছে, তাই সেখানে এক সময় রটে যায়, লিবার্তোদোরেসের ফাইনাল মরুর দেশেই করা যেতে পারে। ফাইনাল কবে, কোথায় হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে মঙ্গলবারই।

রোববার বোকা জুনিয়রের খেলোয়াড়দের বহন করা বাসে হামলা করে রিভার প্লেট সমর্থকেরা। ওই বাসে থাকা বোকার খেলোয়াড়েরা আহত হন। যার মধ্যে আছেন বোকার তারকা ফরোয়ার্ড কার্লোস তেভেজও।

রিভার প্লেটের সমর্থকের পিপার স্প্রে ছুঁড়ে মারে বোকার খেলোয়াড়দের চোখে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কাঁদানে গ্যাসের শেল নিক্ষেপ করে স্থানীয় পুলিশ। তাৎক্ষণিকভাবে ম্যাচ এক ঘণ্টা পিছিয়ে দেয় কর্তৃপক্ষ। বোকার পক্ষ থেকে বলা হয়, তাদের পক্ষে খেলা সম্ভব নয়। পরে ম্যাচ একদিন পিছিয়ে দেয়া হয়। কিন্তু বোকার খেলোয়াড়রা সুস্থ না হওয়ায় ম্যাচ অনির্ধারিত সময়ের জন্য পিছিয়ে যায়।

বোকার মাঠে হওয়া ফাইনালের প্রথম লেগ ২-২ গোলে ড্র হয়। প্রবল বৃষ্টিতে মাঠে পানি জমে যাওযায় ওই ম্যাচও ২৪ ঘন্টা পিছিয়ে দেয়া হয়েছিল।

Bellow Post-Green View