চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

বিশ্বকাপ বাছাই পিছিয়ে যাওয়ায় স্বস্তিতে রুমানা

করোনাভাইরাসের কারণে পিছিয়ে গেছে মেয়েদের ২০২১ বিশ্বকাপের বাছাইপর্ব। আইসিসির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে পরবর্তীতে সূচি ঠিক করে জানিয়ে দেয়া হবে। এমন খবরে ওয়ানডে অধিনায়ক রুমানা আহমেদ হতাশ নন, বরং খুশিই। কেননা বাছাইপর্ব পিছিয়ে যাওয়ায় লাভবান হবে বাংলাদেশের মেয়েরা!

সালমা খাতুনের নেতৃত্বে অস্ট্রেলিয়ায় টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলে মেয়েরা দেশে ফেরে গত ৪ মার্চ। নতুন করে অনুশীলন শুরুর আগেই সকল ক্রিকেটীয় কার্যক্রম বন্ধ করে দেয় বিসিবি। করোনার বিস্তার বেড়ে চলায় প্রায় দুই মাস ধরে অনুশীলনের বাইরে ক্রিকেটাররা। বন্ধ সবধরনের খেলাধুলা।

বিজ্ঞাপন

সময় যতই গড়াচ্ছে দেশে করোনা শনাক্ত রোগী বাড়ছে। পরিস্থিতি কবে নিয়ন্ত্রণে আসবে সেটি সম্পর্কে ধারণা করতে পারছেন না কেউ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, দ্রুতই সমস্যার সমাধান সম্ভব নয়। আর মাঠে খেলা শুরু করা তো আরও পরের কথা।

বিজ্ঞাপন

আগের তারিখ অনুযায়ী বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব শুরু হলে প্রস্তুতি ছাড়াই খেলতে নামতে হতো বাংলাদেশ দলকে। আসরটি পিছিয়ে যাওয়ায় স্বাভাবিকভাবেই খুশি রুমানা।

টাইগ্রেস অলরাউন্ডার বললেন, ‘মহামারীর এই সময়ে টুর্নামেন্ট স্থগিত হতে পারে এরকম একটা ধারণা করছিলাম। তবে নিশ্চিত ছিলাম না। আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা আসায় এখন কিছুটা স্বস্তি পাচ্ছি। কারণ দীর্ঘদিন আমরা মাঠের বাইরে। ঘরে বসে যতই ফিটনেস নিয়ে কাজ করি না কেনো, মাঠে থেকে ফিটনেস নিয়ে কাজ করার মতো হচ্ছিল না।’

‘এখন অনুশীলনের জন্য যথেষ্ট সময় পাওয়া যাবে আশা করি। সেই সময়টাকে কাজে লাগিয়ে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের জন্য পুরোপুরি ফিট হতে পারবে ক্রিকেটাররা। এখন নতুন করে পরিকল্পনা সাজাতে হবে আমাদের।’ বলেন বাংলাদেশের ওয়ানডে অধিনায়ক রুমানা।