চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

‘বাংলাভাষী দুনিয়ার এক সেরা সুরকার ছিলেন আলাউদ্দিন আলী’

কিংবদন্তী সুরকার, গীতিকার ও সংগীত পরিচালক ছিলেন আলাউদ্দিন আলী। টানা কয়েক দশক তার সুরে জনপ্রিয়তা পেয়েছে অসংখ্য বাংলা গান। দেশ বিদেশের অসংখ্য বাঙালি উদ্বেলিত হয়েছেন তার গানে। মুগ্ধ হয়েছেন তার সুর করা গান শুনে।

শুধু সাধারণ শ্রোতাই নন, তিনি বহু সংগীত সমঝদার মানুষ ও সংগীতের রথি মহারথিদের কাছেও ছিলেন অনুপ্রেরণা। তার গান ও সুরে মুগ্ধ পশ্চিম বঙ্গের আরেক কিংবদন্তী শিল্পী কবীর সুমন। নানা সময় তিনি আলাউদ্দিন আলীর গানের প্রতি নিজের মুগ্ধতার কথা জানিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

তার মুত্যুর খবরেও বিচলিত বোধ করেছেন কবীর সুমন। নিজের অনুভূতি সোশাল মিডিয়ায় প্রকাশ করে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় বলেছেন, বাংলাভাষী দুনিয়ার এক সেরা সুরকার বাংলাদেশের আলাউদ্দিন আলী চলে গেলেন। প্রকৃত গুণী, ভালো মানুষ।

এরআগে অসংখ্য গানের এই সুরকারের অসুস্থতার সংবাদেও আলাউদ্দিন আলীকে নিয়ে কবীর সুমন মন্তব্য করেন, বাংলাভাষী দুনিয়ায় আলাউদ্দিন আলীর মতো সুরকার খুব কম এসেছেন গত ৩০-৪০ বছরে।

সম্প্রতি সংগীতশিল্পী আসিফের গাওয়া নিজের লেখা ও সুরে ‘লুকানো মানিক’ শিরোনামের একটি গান ফেসবুকে শেয়ার করে কবীর সুমন লেখেন, ‘বাংলাদেশের শুধু নয়, সমকালীন দুনিয়ার এক অসামান্য সুরকার আলাউদ্দীন আলীর সুরশৈলীর সঙ্গে এই সুরের মিল আছে। বাংলার সুর। যদিও আমার চেয়ে অনেক বড় সুরকার আলাউদ্দীন আলী।’

রবিবার (৯ আগস্ট) বিকাল ৫টা ৫০ মিনিট নাগাদ রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন কিংবদন্তী আলাউদ্দিন আলী। তার মৃত্যুর খবরে শোক নেমে আসে দেশের সংগীতাঙ্গনে।

এ পর্যন্ত ৮ বার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন আলাউদ্দিন আলী। তার সুর করা গানের সংখ্যা ৫ হাজারেরও বেশি। এরমধ্যে কালজয়ী কিছু গান হচ্ছে ও আমার বাংলা মা তোর, সূর্যোদয়ে তুমি সূর্যাস্তেও তুমি ও আমার বাংলাদেশ, বন্ধু তিন দিন তোর বাড়ি গেলাম দেখা পাইলাম না, যেটুকু সময় তুমি থাকো কাছে, মনে হয় এ দেহে প্রাণ আছে, প্রথম বাংলাদেশ, আমার শেষ বাংলাদেশ, এমনও তো প্রেম হয়, চোখের জলে কথা কয়, আছেন আমার মুক্তার, আছেন আমার ব্যারিস্টার, জন্ম থেকে জ্বলছি মাগো, ভালোবাসা যত বড় জীবন তত বড় নয়।